শেষের পাতা

টানা ৫ বার সিআইপি নির্বাচিত হলেন মৌলভীবাজারের আবদুর রহিম

প্রকাশিত হয়েছে: ১৬-০৫-২০১৮ ইং ০৪:০৮:১৩ | সংবাদটি ৮৬ বার পঠিত

মৌলভীবাজার সংবাদদাতা ঃ টানা ৫ বারের মতো সিআইপি নির্বাচিত হলেন মৌলভীবাজারের কৃতি সন্তান যুক্তরাজ্য প্রবাসী শিল্পপতি আবদুর রহিম। গত সোমবার প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় প্রবাসী বাংলাদেশিকে বাণিজ্যিক গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি (সিআইপি) হিসেবে আবদুর রহিমের পাশাপাশি ৩৫ জন ব্যক্তিকে সিআইপি ঘোষণা করে।
বিদেশে গিয়ে পরিশ্রম করে আয় করা অর্থ বৈধভাবে বাংলাদেশে পাঠিয়ে এ খেতাব পেয়েছেন ২৯ জন প্রবাসী। বাকি ছয়জন বিদেশ থেকে বিপুল পরিমাণ পণ্য আমদানি করে ওই সব দেশে বিক্রি করে এ তালিকায় জায়গা পেয়েছেন।
জানা যায়, এর আগে ২০০৯, ১০, ১২ ও ১৫ সালে সিআইপি নির্বাচিত হন আবদুর রহিম। তিনি বৈধভাবে বিদেশ থেকে সর্বোচ্চ টাকা এনে নিজ এলাকা ও দেশের বিভিন্ন জায়গায় শিল্প কারখানা গড়ে তুলেছেন। তার গড়া প্রতিষ্ঠানে কাজ করছেন শত শত শ্রমিক। তিনি এলাকাবাসীর উন্নয়নের জন্য নিজ এলাকায় একটি ডিগ্রী কলেজ, এগ্রোফার্ম, এতিমখানাসহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান গড়ে তুলেছেন। অবহেলিত ও বেকার যুবকদের কর্মসংস্থানের জন্য তার চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।
জানা যায়, ১৯৬৯ সালে ছাত্রলীগের রাজনীতির মাধ্যমে রাজনৈতিক জীবনের সূচনা হয় রহিমের। ১৯৭৭ সালে জেলা ছাত্রলীগের সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। তারপর ১৯৮২ সালে পারিবারিক কারণে ইংল্যান্ড চলে যান। জড়িয়ে পড়েন ব্রিটিশ রাজনীতিতে। সেখানে আওয়ামীলীগকে সংগঠিত করতে কাজ করেন এবং আওয়ামীলীগের তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক ও পরবর্তীতে সহ-সভাপতি নির্বাচিত হন। তারই মধ্যে সেখানকার সামাজিক ও রাজনৈতিক কর্মকান্ডে বেশ জনপ্রিয়তা অর্জন করতে সক্ষম হন এমএ রহিম। ব্রিটিশদের ভোটে প্রথম বাংলাদেশী ব্রিটিশ কাউন্সিলর নির্বাচিত হন তিনি। সেখানকার স্থানীয় সরকারের শিক্ষা কমিটির চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করেন। তারপর ২০০৭ সালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বাংলাদেশে রাজনীতি ও জনসেবা করতে তাকে দেশে নিয়ে আসেন। সেই থেকে আওয়ামীলীগের রাজনীতিতে আরো সক্রিয় হয়ে কাজ করে যাচ্ছেন।
সিআইপি এমএ রহিম বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সোনার বাংলা ও আওয়ামীলীগের সভানেত্রী শেখ হাসিনার স্বপ্ন বাস্তবায়ন করতে বৈধ পথে সর্বোচ্চ টাকা দেশে এনে বিভিন্ন শিল্প কারখানা গড়ে তুলেছি এবং অনেকের কর্মসংস্থান করেছি। পাশাপাশি মৌলভীবাজার-৩ আসনকে আধুনিক ও মডেল এলাকা হিসেবে বাংলাদেশের মধ্যে দৃষ্টান্ত স্থাপন করতে চাই। জননেত্রীর সুযোগ্য পুত্র সজিব ওয়াজেদ জয়ের হাতকে শক্তিশালী করার জন্য নতুন প্রজন্মকে এগিয়ে নেয়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন তিনি।

শেয়ার করুন
শেষের পাতা এর আরো সংবাদ
  • সিলেট-সুনামগঞ্জ মহাসড়কে কৌশলে চলছে গাছ কর্তন!
  • সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণভাবে নির্বাচন অনুষ্ঠানে কমিশনের সব প্রস্তুতি রয়েছে : সিইসি
  • ৫ মোটর সাইকেল চোর আটক ৪টি মোটর সাইকেল উদ্ধার
  • হাওরাঞ্চলের মানুষের জীবনমান উন্নয়নে শেখ হাসিনার বিকল্প নেই ... প্রতিমন্ত্রী এম এ মান্নান
  • শেখ হাসিনা’র নির্দেশ পেয়েই সিলেটের উন্নয়নে কাজ করতে নেমেছি
  • সরকার নারী উন্নয়নে ব্যাপক পদক্ষেপ নিয়েছে -----------দেবজিৎ সিনহা
  • প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জন্মদিনে জেলা আওয়ামী লীগের কর্মসূচি
  • হবিগঞ্জ শহরে প্রবাসীর বাড়িতে ডাকাতি, গৃহকত্রী আহত
  • চুনারুঘাটে টং দোকান থেকে ককটেল ও পেট্রোল বোমা উদ্ধার
  • সিলেটে স্কুলছাত্র ইমন হত্যা ১৮ জনের সাক্ষ্য গ্রহণ শেষ
  • ফ্ল্যাট কিনতে সরকারি কর্মচারীরা ঋণ পাবেন ৫% সুদে
  • ১ অক্টোবর থেকে নেতাকর্মীদের ‘রেডি’ হতে বললেন মওদুদ
  • বিচার বিভাগের ‘ভাবমূর্তি নষ্ট’ করেছেন সিনহা : অ্যাটর্নি জেনারেল
  • লিডিং ইউনিভার্সিটিতে বাংলাদেশে ব্যাংকিং সিস্টেম বিষয়ক সেমিনার আজ
  • ওসমানীনগরে অবৈধ বাঁধ অপসারণ : ৩ মণ কারেন্ট জাল জব্দ
  • শিলংয়ে সালাহ উদ্দিনের ভাগ্য নির্ধারণ শুক্রবার
  • কমলগঞ্জে উদ্ধারকৃত মস্তকবিহিন নারীর পরিচয় সনাক্ত
  • শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ এখন উন্নয়নের মহাসড়কে
  • হবিগঞ্জে শিশু অপহরণের ৩ ঘন্টার মাথায় উদ্ধার, অপহরণকারী আটক
  • দেশের অগ্রযাত্রা অব্যাহত রাখতে হবে ---------জেলা প্রশাসক নুমেরী জামান
  • Developed by: Sparkle IT