শেষের পাতা

জাপানে বন্যায় মৃত প্রায় ২০০, তীব্র গরমে খাবার পানির সঙ্কট

প্রকাশিত হয়েছে: ১৩-০৭-২০১৮ ইং ০৩:৪৩:৪২ | সংবাদটি ৪৩ বার পঠিত

ডাক ডেস্ক : জাপানে গত প্রায় চার দশকের মধ্যে সবচেয়ে বিপর্যয়কর প্রাকৃতিক দুর্যোগে মৃতের সংখ্যা ২০০-র কাছাকাছি পৌঁছে গেছে।
গতকাল বৃহস্পতিবার বন্যা কবলিত পশ্চিম জাপানে তীব্র গরমের মধ্যে খাবার পানির সংকট দেখা দেওয়ায় রোগের প্রাদুর্ভাব ছড়িয়ে পড়ার শঙ্কা দেখা দিয়েছে, জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।
প্রবল বৃষ্টিপাতে সৃষ্ট বন্যা ও ভূমিধস পাহাড়ের ঢালে ও প্লাবন ভূমিতে গড়ে তোলা কয়েক দশকের পুরনো আবাসিক এলাকাগুলোতে বহু ধ্বংসের চিহ্ন রেখে রেখে গেছে। এখন পশ্চিম জাপানের দুই লাখেরও বেশি বাড়িতে খাওয়ার বা ব্যবহার করার মতো কোনো পানি নেই।
মৃতের সংখ্যা ১৯৫ জনে দাঁড়িয়েছে, আরও বহু মানুষ এখনও নিখোঁজ রয়েছেন বলে বৃহস্পতিবার জানিয়েছে দেশটির সরকার।
প্রতিদিন তাপমাত্রা ৩০ সেলসিয়াসের উপরে থাকার পাশাপাশি আর্দ্রতা বেশি হওয়ায় স্কুলের ব্যায়ামাগার ও অন্যান্য আশ্রয়কেন্দ্রগুলোতে থাকা পরিবারগুলোর জীবন অসহনীয় হয়ে উঠেছে।
পানি সরবরাহ সীমিত হওয়ায় তীব্র গরমের মধ্যে প্রয়োজনীয় তরল গ্রহণ করতে না পারায় এসব মানুষ হিটস্ট্রোকে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকিতে আছেন বলে জানিয়েছ কর্তৃপক্ষ। সরবরাহ করা পানি অপ্রতুল হওয়ায় মানুষ হাতের কাছে যে পানি পাচ্ছে তাই ব্যবহার করছে, এতে প্রাদুর্ভাব ছড়িয়ে পড়ায় শঙ্কা তৈরি হয়েছে।
এক ব্যক্তি এনএইচকে টেলিভিশনকে বলেছেন, “পানি না থাকায় আমরা কোনো কিছুই পরিষ্কার করতে পারছি না, কোনো কিছু ধুতেও পারছি না।”
সরকার দুর্যোগপূর্ণ এলাকাগুলোতে পানিবাহী ট্রাক পাঠালেও প্রয়োজনের তুলনায় তা অপ্রতুল।
নিখোঁজদের খোঁজে ৭০ হাজারেরও বেশি সৈন্য, পুলিশ ও দমকল কর্মী ধ্বংসস্তূপের মধ্যে বিরামহীন তল্লাশি চালিয়ে যাচ্ছে। অনেক এলাকা পুরু কাদার নিচে চাপা পড়ে আছে এবং ওই কাদা থেকে নর্দমার গন্ধ আসতে থাকায় তীব্র গরমের মধ্যে তল্লাশি অব্যাহত রাখা কঠিন হয়ে উঠেছে।

শেয়ার করুন
শেষের পাতা এর আরো সংবাদ
  • সিলেটের বিচারিক কার্যক্রম দেখে প্রধান বিচারপতির সন্তোষ প্রকাশ
  • ওসমানী বিমানবন্দরে সাড়ে ৪ কেজি স্বর্ণ জব্দ ॥ এক ব্যক্তি আটক
  • নতুন প্রজন্মকে দেশ প্রেমের চেতনায় উজ্জীবিত হতে হবে ............নুমেরী জামান
  • দোয়ারাবাজারে পর্ণোগ্রাফি ব্যবসায় জড়িত থাকার অভিযোগে আটক ৭
  • বিশ্বনাথে মৃত ব্যক্তির ওরুসের নামে আসামাজিক কর্মকান্ড পন্ড
  • চোরাচালান রোধসহ বিভিন্ন বিষয়ে সিদ্ধান্ত গ্রহণ
  • দন্ড স্থগিত, নওয়াজকে মুক্তির নির্দেশ
  • নির্বাচনে বিএনপি সহিংসতা করলে জনগণকে সঙ্গে নিয়ে প্রতিহত করা হবে : কাদের
  • এই সরকারের একদিন বিচার হবে: ফখরুল
  • কতগুলো প্রতিষ্ঠান ও কবে এমপিওভুক্ত, নির্ভর করছে যাচাই-বাছাইয়ের ওপর: শিক্ষামন্ত্রী
  • হাতির আক্রমণে কুলাউড়া যুবদল নেতা শামিম নিহত
  • কালিঘাটে ব্যবসায়ীর জায়গা দখল চেষ্টার অভিযোগ
  • প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশে যুগান্তকারী উন্নয়ন সাধিত হয়েছে -------এডভোকেট মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ
  • ‘নিরীহ নেতাকর্মীদের উপর গায়েবী মামলার পরিণতি শুভ হবে না’
  • সিলেট বিভাগে মাঝারী ধরণের বৃষ্টি হতে পারে
  • মৌলভীবাজারে ডাকা আজকের হরতাল প্রত্যাহার
  • শাবির ব্যবসায় প্রশাসনের নতুন বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ড. মোছাদ্দেক
  • সহপাঠীর ছুরিকাঘাতে ব্লু বার্ড স্কুলের ছাত্র গুরুতর আহত
  • আড়াই লাখ বাংলাদেশি পাবেন পাকিস্তানের নাগরিকত্ব
  • রোহিঙ্গাভারে ‘মারাত্মক’ ঝুঁকিতে কক্সবাজারের পরিবেশ
  • Developed by: Sparkle IT