প্রথম পাতা

কিশোরী মোহন কেন্দ্রে দেরীতে প্রশ্নপত্র দেয়ার অভিযোগ ভেন্যু সচিব ও হল সুপারকে অব্যাহতি শিক্ষা বোর্ড ও জেলা প্রশা

প্রকাশিত হয়েছে: ১১-০২-২০১৯ ইং ০৩:২৮:১৫ | সংবাদটি ১৩৫ বার পঠিত

 স্টাফ রিপোর্টার : এসএসসি’র গণিত পরীক্ষায় নগরীর কিশোরী মোহন কেন্দ্রে ১০ মিনিট দেরীতে প্রশ্নপত্র দেয়ার অভিযোগে তোলপাড় শুরু হয়েছে। এ ঘটনায় ভ্যেনু সচিব ও হল সুপারকে দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি দেয়া হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে সিলেট শিক্ষা বোর্ড ও জেলা প্রশাসন পৃথক তদন্ত কমিটি গঠন করেছে। সংশ্লিষ্ট সূত্র এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।
সিলেট শিক্ষাবোর্ডের অধীনে গত শনিবার অনুষ্ঠিত এসএসসি পরীক্ষা চলাকালে নগরীর কিশোরী মোহন বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রের ৫টি কক্ষে শিক্ষার্থীদের কাছে ১০ মিনিট দেরীতে প্রশ্নপত্র দেয়ার অভিযোগ করেন সংশ্লিষ্ট শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা। এ ব্যাপারে তারা সিলেটের জেলা প্রশাসক বরাবরে লিখিত অভিযোগ করেন। অভিযোগ পত্রে তারা আরো উল্লেখ করেন, হিজাব পরিধান করা শিক্ষার্থীদের কান বাহির করে রাখা ও টাই খোলার নির্দেশ দেয়ায় পরীক্ষার্থীরা বিব্রতকর পরিস্থিতির সম্মুখীন হয়। এমনকি, পরীক্ষা কেন্দ্রে নিয়োজিত শিক্ষকরা শিক্ষার্থীদের ভয়ভীতি প্রদর্শন করেন বলেও অভিযোগে উল্লেখ করা হয়। দেরীতে প্রশ্নপত্র দেয়ায় এ কেন্দ্রের ১৪, ১৭, ১৮, ১৯ এবং ২০ নং কক্ষের শিক্ষার্থীদের উত্তরপত্র বিশেষভাবে মূল্যায়নের দাবী জানান সংশ্লিষ্ট অভিভাবকরা।
সিলেট শিক্ষাবোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক মো: কবির আহমদ জানান, তারা বিষয়টি খতিয়ে দেখতে কলেজ পরিদর্শককে প্রধান করে তিন সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করেছেন। ৩ কর্ম দিবসের মধ্যে তদন্ত কমিটিকে প্রতিবেদন জমা দিতে বলা হয়েছে। এ ঘটনায় ভ্যেনু সচিব কিশোরী মোহন বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও হল সুপারকে দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি দেয়া হয়েছে বলেও জানান তিনি।
সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, অভিযুক্ত শিক্ষকরা গতকাল রোববার সিলেটের জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে উপস্থিত হয়ে তাদের বক্তব্য তুলে ধরেন। বিষয়টি তদন্তের জন্য জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে এক সদস্য বিশিষ্ট কমিটি গঠন করা হয়েছে। আজ সোমবার তদন্ত শেষে আগামীকাল মঙ্গলবার তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করবে কমিটি। তদন্ত কমিটি গঠনের বিষয়টি নিশ্চিত করে সিলেটের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) মো: আসলাম উদ্দিন সিলেটের ডাককে জানান, প্রতিবেদন পেলেই এ ব্যাপারে যথাযথ ব্যবস্থা নেয়া হবে।
এ ব্যাপারে কিশোরী মোহন বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের কেন্দ্র সচিব ও এইডেড উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শমসের আলীর সাথে একাধিকবার যোগাযোগ করা হলেও তিনি ফোন রিসিভ করেননি।

শেয়ার করুন
প্রথম পাতা এর আরো সংবাদ
  • একুশের প্রথম প্রহরে
  • স্বাধীনতাবিরোধী ভূমিকার জন্য জামায়াতের ক্ষমা চাওয়া উচিত : বিএনপি
  • ভাষা, সংস্কৃতি, ঐতিহ্য সুরক্ষা করতে হবে : প্রধানমন্ত্রী
  • চতুর্থ ধাপে ১২২ উপজেলায় ভোট ৩১ মার্চ
  • যুক্ত হলো আরেকটি স্প্যান ১২শ মিটারে পদ্মা সেতু
  • নাইকো: খালেদা হাজির না হওয়ায় পিছিয়েছে শুনানি
  • সংসদের সংরক্ষিত মহিলা আসনে ৪৯ জন শপথ নিয়েছেন
  • সিলেট ও মৌলভীবাজারে চেয়ারম্যান প্রার্থীসহ ৭৯ জনের মনোনয়ন বাতিল
  • অমর একুশে ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস’ আজ
  • সরকারের চলতি মেয়াদেই পূর্ণাঙ্গ রূপ পাবে সিলেট মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়
  • সুনামগঞ্জে প্রতীক বরাদ্দ পেলেন ১৪৬ প্রার্থী
  • পরিকল্পনামন্ত্রী ৩ দিনের সফরে সিলেট আসছেন আজ
  • মৌলভীবাজারের ৭ উপজেলায় ভোটার ১২ লাখ ৯৭ হাজার ৫১১
  • সুনামগঞ্জের জোয়াল ভাঙ্গার হাওরে দু’মাসে ১০ ভাগ কাজও হয়নি
  • পানিতে ডুবে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষকের শিশুপুত্রের মৃত্যু
  • সিলেটে ১২ উপজেলায় ভোটার ১৭ লাখ ৯৩ হাজার ৭১০
  • স্বাস্থ্যমন্ত্রী সিলেট আসছেন আজ
  • অমর ২১ শে
  • জগন্নাথপুরে বাঁধের কাজে গাফিলতির অভিযোগে আটক ৪
  • সুনামগঞ্জে ১৩ ও হবিগঞ্জে ৫ প্রার্থীর মনোনয়ন প্রত্যাহার
  • Developed by: Sparkle IT