শেষের পাতা বোমা মেশিন বন্ধে আজ মাইকিং

ভোলাগঞ্জ রোপওয়ে রক্ষায় সকলকে সোচ্চার হওয়ার আহ্বান

স্টাফ রিপোর্টার প্রকাশিত হয়েছে: ২২-০৫-২০১৯ ইং ০২:৪০:২৭ | সংবাদটি ৬৯ বার পঠিত

 ভোলাগঞ্জ রোপওয়ে রক্ষায় সকলকে সোচ্চার হওয়ার আহ্বান জানিয়েছের কোম্পানীগঞ্জের নাগরিক সমাজের প্রতিনিধিরা। তারা জানান, ভোলাগঞ্জ রোপওয়ে হচ্ছে একটি ঐতিহ্যবাহী স্থাপনা। যে কোন মূল্যে এ স্থাপনা রক্ষা করতে হবে।
কোম্পানীগঞ্জের বিশিষ্ট কলামিস্ট ও সাবেক ছাত্রনেতা রফিকুল হক বলেন, যন্ত্রদানব বোমা মেশিন দিয়ে ভোলাগঞ্জ রোপওয়ে এলাকায় ধ্বংসলীলা চালানো কোনভাবেই মেনে নেয়া যায় না। এটি রক্ষায় সিভিল প্রশাসন ও পুলিশ বাহিনীকে তৎপর হতে হবে। এরই মধ্যে এই এলাকাকে বিরানভূমিতে পরিণত করা হয়েছে বলে জানান তিনি।
কোম্পানীগঞ্জের নাগরিক সমাজের প্রতিনিধিরা বিভিন্ন সোস্যাল মিডিয়ায় রোপওয়ে রক্ষার আহ্বান জানিয়েছেন। এমনকি এর সাথে জড়িত বিভিন্নজনের নামও প্রচার করছেন।
কোম্পানীগঞ্জ থানার ওসি তাজুল ইসলাম জানান, রোপওয়ে ধ্বংসকারীদের বিরুদ্ধে তারা কঠোর অবস্থানে রয়েছেন। তিনি জানান, এরই মধ্যে রোপওয়ে ধ্বংসকারী কাজল সিংহসহ ৪ জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের হয়েছে। সেসহ অন্য আসামীদের শিগগিরই আইনের আওতায় নিয়ে আসা হবে। তিনি জানান, ভোলাগঞ্জ কোয়ারিতে বোমা মেশিন বন্ধে আজ বুধবার এলাকায় মাইকিং করা হবে।
পুলিশের একটি সূত্র জানায়, বাংলাদেশ রেলওয়ের মালিকানাধীন ভোলাগঞ্জ রোপওয়ে এলাকায় বোমা মেশিন দিয়ে পাথর উত্তোলনের জন্য একটি সিন্ডিকেট গড়ে তুলে কাজল সিংহ। তার সাথে স্থানীয় একটি চিহ্নিত চক্রও জড়িত রয়েছে। ওই চক্র চট্টগ্রামে রেলওয়ে কর্মকর্তাদের ম্যানেজ করে সেখানে পাথর উত্তোলনের চেষ্টা চালায়। এমনকি পাথর উত্তোলনের জন্য তারা বিভিন্ন স্থানে তদবির শুরু করে। কিন্তু, কোম্পানীগঞ্জ থানাপুলিশ কঠোর হওয়ায় তাদের সে প্রচেষ্টা ভেস্তে যায়।
প্রসঙ্গত, রোপওয়ের সংরক্ষিত এলাকায় বোমা মেশিন দিয়ে পাথর উত্তোলনের খবর পেয়ে গত শনিবার রাত সাড়ে ৩টা থেকে সকাল সাড়ে ৭টা পর্যন্ত সেখানে অভিযান চালিয়ে ধ্বংস করা হয় তিনটি মেশিন। আটক করা হয় একজনকে। পুলিশের পক্ষ থেকে আলোচিত কাজল সিংহসহ ৪ জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে। থানার এস আই মিজানুর রহমান বাদি হয়ে এ মামলা দায়ের করেছেন।
আসামী কাজল সিংহ নতুন বালুচর গ্রামের রামধন সিংহের পুত্র। কাজল ছাড়াও মামলার অপর আসামীরা হলেন, তার (কাজল) ভাই সজল সিং, একই গ্রামের সিকন্দর আলীর পুত্র ইজবর আলী(পুলিশের হাতে আটক) এবং কলাবাড়ি গ্রামের রফিক মিয়া।

 

শেয়ার করুন
শেষের পাতা এর আরো সংবাদ
  • ইউপি চেয়ারম্যানদের গ্রাম আদালত বিষয়ে প্রশিক্ষণ গ্রহণ প্রয়োজন
  • জীবনযাত্রার মানোন্নয়ন ও দারিদ্র্য বিমোচনে বাংলাদেশ বিশ্বে অনন্য উদাহারণ : শেখ হাসিনা
  • আগামী দিনে ভারত ও বাংলাদেশের আইসিটি সেক্টর একযোগে কাজ করবে
  • জঙ্গিবাদ নিরসনে বাংলাদেশকে রোড মডেল হিসেবে গণ্য করা হয়
  • কমলগঞ্জে ডোবায় পড়ে শিশুর মৃত্যু
  • বর্ষিয়ান রাজনীতিবিদ আ.ন.ম শফিককে প্রধানমন্ত্রীর ৫ লক্ষ টাকা অনুদান প্রদান
  • মনু ও ধলাই নদী ড্রেজিং না হওয়ায় হুমকিতে মৌলভীবাজারবাসী
  • হবিগঞ্জ পৌরসভার ২০১৯-২০ অর্থবছরের সোয়া ৮৫ কোটি টাকার বাজেট ঘোষণা
  • হবিগঞ্জে মানবাধিকার সুরক্ষায় সচেতনতা ও আইনগত সহায়তা বিষয়ক মতবিনিময় সভা
  • সিলেটে আজ তাপমাত্রা হ্রাস ও বৃষ্টি হতে পারে
  • ‘কর্পোরেট লিডারস টক’ সেমিনারে ভিসি প্রতিনিয়ত কারিকুলাম আপডেট করে লিডিং ইউনিভার্সিটি
  • জামালগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের পূর্ণাঙ্গ ফলাফল
  • মোহাম্মদ মকন মিয়ার ২৬তম মৃত্যুবার্ষিকী পালিত
  • মোহাম্মদ মকন মিয়ার ২৬তম মৃত্যুবার্ষিকী পালিত
  • জেলার মাসুদ পারভেজ মঈনের ইন্তেকাল
  • গোলাপগঞ্জে প্রতিপক্ষের হামলায় সাংবাদিকসহ আহত ২ ॥ শাস্তির দাবীতে সাংবাদিকদের সভা
  • নগর উন্নয়নে সিটি কাউন্সিলরদের দক্ষ করে গড়ে তুলতে হবে
  • শাবি’র ৩টি বার্ষিক প্রতিবেদনের মোড়ক উন্মোচন
  • ৮০৫৩ কোটি টাকার ১১ প্রকল্প একনেকে অনুমোদন
  •   মেয়াদোত্তীর্ণ ওষুধ ধ্বংসে একমাস সময় দিল
  • Developed by: Sparkle IT