প্রথম পাতা

বিভিন্ন মহলের শোক প্রকাশ একজন নির্লোভ, ত্যাগী ও আদর্শিক নেতাকে হারালাম

প্রকাশিত হয়েছে: ১৫-০৮-২০১৯ ইং ০৩:১৩:৫০ | সংবাদটি ১৫৪ বার পঠিত

স্টফ রিপোর্টার ঃ আওয়ামী লীগের জাতীয় পরিষদ সদস্য ও সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি বর্ণাঢ্য রাজনৈতিক জীবনের অধিকারী আ ন ম শফিকুল হকের মৃত্যুতে আওয়ামী লীগসহ বিভিন্ন সংগঠনের পক্ষ থেকে শোক প্রকাশ করা হয়েছে। পাশপাশি নেয়া হয়েছে বিভিন্ন কর্মসূচি। নেতা-কর্মীরা দলের প্রতি তার অবিচল আস্থা ও ভালোবাসা এবং দায়বদ্ধতার উদারহণ টেনে স্মৃতিচারণ করেন। শোক প্রকাশ করতে গিয়ে অনেকে আবেগঘন বক্তব্য দেন। দীর্ঘদিন দলের নেতৃত্বে থাকলেও কখনো ব্যক্তিস্বার্থ তাকে আদর্শচ্যুত করতে পারেনি। প্রতিকূল ও কঠিন সময়েও তিনি দলের প্রতি তার অবিচল আস্থা সাধারণ নেতাকর্মীদের আশান্বীত করতো বলে তারা উল্লেখ করেন। তাঁর মৃত্যুতে একজন নির্লোভ, ত্যাগী, দক্ষ, সকল প্রতিকূলতায় দলের প্রতি অবিচল আস্থাশীল ও আদর্শীক নেতা হারালাম। তার রাজনৈতিক জীবন আমাদের জন্য শিক্ষণীয়।
পররাষ্ট্রমন্ত্রীর শোক ঃ বর্ষীয়ান রাজনীতিবিদ আ ন ম শফিকুল হকের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন। এক শোকবার্তায় মন্ত্রী বলেন, আ ন ম শফিকুল হক বিশেষ করে সিলেট অঞ্চলে আওয়ামী লীগের একজন দক্ষ সংগঠক, দলের দুঃসময়ের যোগ্য কা-ারি হিসেবে দলকে সুসংগঠিত করে রাখতে একজন নিবেদিতপ্রাণ নেতা ছিলেন। তার সততা, যোগ্যতা, রাজনৈতিক দূরদর্শীতার ফলে নিজ দল ও দলের বাহিরে সকল মহলে একজন আদর্শীক নেতা হিসেবে সুখ্যাতি অর্জনে তিনি সক্ষম হয়েছিলেন। ড. মোমেন মরহুমের কর্মময় জীবনের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানিয়ে বলেন, আ ন ম শফিকুল হকের মৃত্যুতে আওয়ামী লীগসহ সিলেটের রাজনৈতিক অঙ্গনে যে শূন্যতা সৃষ্টি হয়েছে তা সহজে পূরণ হবার নয়। তিনি মরহুমের রুহের মাগফেরাত কামনা করে শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান।
সাবেক অর্থমন্ত্রী এম এ মুহিতের শোক ঃ বর্ষীয়ান রাজনীতিবিদ আ ন ম শফিকের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করে সাবেক অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেন, আ ন ম শফিক ছিলেন আওয়ামী লীগ অন্তঃপ্রাণ। তিনি আওয়ামী লীগ ছাড়া অন্য কিছু চিন্তা করতে পারতেন না। দলের দুঃসময়ে সামনে থেকে নেতৃত্ব দিতেন। এ ক্ষণজন্মা রাজনীতিবিদের মৃত্যুতে আওয়ামী লীগ হারালো একজন ত্যাগী ও নিবেদিত প্রাণ কর্মীকে। যার শূন্যতা কোনদিন পূরণ হবার নয়।
নুরুল ইসলাম নাহিদ ঃ আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও সাবেক শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ গভীর শোক প্রকাশ করে বলেন, আওয়ামী লীগের দু:সময়ে আ ন ম শফিকুল হক কান্ডারির ভূমিকা পালন করেছেন। দলের জন্য তিনি আজীবন কাজ করে গেছেন। আওয়ামী লীগে আ ন ম শফিকের যে অবদান তা কখনোই ভুলার নয়। তিনি মরহুমের রূহের মাগফেরাত কামনা করেন এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করেন।
আরিফুল হক চৌধুরী ঃ সিলেট সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী শোক প্রকাশ করে বলেন,
আ ন ম শফিক ছিলেন আজীবন রাজনীতিবিদ। সারাজীবন তিনি দেশ ও দলের জন্য কাজ করেছেন। তাঁর মৃত্যুতে সিলেট একজন নিবেদিতপ্রাণ রাজনীতিবিদ ও অভিভাবককে হারালো। মানুষ সৎ রাজনীতির একজন হিসেবে তাকে মনে রাখবে। তিনি মরহুমের রুহের মাগফিরাত কামনা করেন এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানান।
মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ ঃ বর্ষীয়ান রাজনীতিবিদ, আওয়ামী লীগের জাতীয় পরিষদ সদস্য আ.ন.ম শফিকুল হকের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন দলের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক এডভোকেট মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ। এক শোকবার্তায় তিনি বলেন, সিলেট অঞ্চলে আওয়ামী লীগকে সংগঠিত করতে তিনি অনেক অবদান রেখেছেন। ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট জাতির জনক বঙ্গবন্ধুকে হত্যার পর আওয়ামী লীগকে সংগঠিত করতে তিনি আপ্রাণ চেষ্টা করেন। তিনি সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সভাপতি হিসেবে দীর্ঘদিন দায়িত্ব পালন করেন। তিনি ছিলেন রাজনীতির আইডল। তাঁর কাছ থেকে আমরা রাজনীতি শিখেছি। সিলেটে সকল আন্দোলন-সংগ্রামে তিনি ছিলেন অগ্রসৈনিক। বিগত বি.এন.পি-জামাত আমলে সিলেটের আন্দোলন- সংগ্রামে তিনি অনন্য ভূমিকা রাখেন। জেল- জুলুম, নির্যাতন কোনোকিছুই তাঁকে দমাতে পারেনি। তাঁর কর্মকান্ড আমাদেরকে গৌরবান্বিত করে। তিনি একজন নির্লোভ, সৎ ও নিরহংকারী রাজনীতিবিদ ছিলেন। তাঁর মৃত্যুতে যে ক্ষতি হলো তা পূরণ হবার নয়। মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ মরহুম আ.ন.ম শফিকের রুহের মাগফেরাত কামনা করে শোকাহত পরিবারবর্গের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান।
বদর উদ্দিন আহমদ কামরান ঃ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সদস্য, সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি সাবেক মেয়র বদর উদ্দিন আহমদ কামরান বলেছেন, , আ ন ম শফিক ছিলেন অত্যন্ত নির্লোভ, ত্যাগী ও দক্ষ একজন রাজনীতিবিদ। তাঁর মৃত্যুতে সিলেট আওয়ামী পরিবার হারালো তাদের একজন ত্যাগী নেতাকে। যার শূন্যতা কোনদিন পূরণ হবার নয়।
এমএ হক ঃ বিএনপির চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা এম এ হক বলেছেন, আ ন ম শফিক একজন নিবেদিতপ্রাণ রাজনীতিবিদ। ভিন্ন দলের রাজনীতি করলেও তিনি ছিলেন সৎ ও রুচিশীল রাজনীতির অনুসারী। পারস্পরিক শ্রদ্ধা ও সম্মানের বিষয়ে তিনি সচেতন ছিলেন। তার মৃত্যুতে আমরা একজন প্রকৃত রাজনীতিবিদকে হারালাম। তিনি মরহুমের রুহের মাগফেরাত ও শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান।
এছাড়াও শোক প্রকাশ করেছেন, সিলেট-৩ আসনের সংসদ সদস্য মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী, সিলেট-২ আসনের সংসদ সদস্য মোকাব্বির খান, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সদস্য, সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এডভোকেট লুৎফুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক সাবেক এমপি শফিকুর রহমান চৌধুরী, মহানগর সাধারণ সম্পাদক আসাদ উদ্দিন, সিলেট সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আশফাক আহমদ কেন্দ্রীয় মুসলিম সাহিত্য সংসদের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এম.এ.করিম চৌধুরী ও সাধারণ সম্পাদক দেওয়ান মাহমুদ রাজা চৌধুরী, কমনওয়েলথ জার্নালিস্ট এসোসিয়েশনের এমিরিটাস প্রেসিডেন্ট হাসান শাহরিয়ার, ব্যবসায়ীদের শীর্ষ সংগঠন এফবিসিসিআই এর পরিচালক খন্দকার সিপার আহমদ, আওয়ামী লীগের সাবেক কেন্দ্রীয় নির্বাহী সদস্য, সাবেক এমপি সৈয়দা জেবুন্নেছা হক, সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক অধ্যক্ষ সুজাত আলী রফিক, জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক, সিলেট-২ আসনের সাবেক সাংসদ মকসুদ ইবনে আজিজ লামা, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও বেসরকারি স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা সীমান্তিকের প্রধান পৃষ্ঠপোষক ড. আহমদ আল কবির, ঢাকাস্থ ডেল্টা হসপিটালের চেয়ারম্যান এস এ মুয়িয সুজন, সিলেট ডায়বেটিক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ডা. এম. এ. আহবাব, ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট নিজাম উদ্দিন ও কোষাধ্যক্ষ এম. এ. মান্নান, বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের কার্যনির্বাহী সদস্য, সিলেট জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক ও জেলা ফুটবল এসোসিয়েশনের প্রেসিডেন্ট মাহি উদ্দিন আহমদ সেলিম, জেলা ক্রীড়া সংস্থার কার্যনির্বাহী সদস্য বিজিত চৌধুরী, এডভোকেট নিজাম উদ্দিন ও নাজনীন হোসেন এবং কোষাধ্যক্ষ মো. সিরাজ উদ্দিন, বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের পরিচালক শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল, বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা ড. মো: এনামুল হক চৌধুরী, সিলেট প্রেসক্লাব সভাপতি ইকরামুল কবির ও সাধারণ সম্পাদক ইকবাল মাহমুদ, দৈনিক ইত্তেফাকের ব্যুরো প্রধান হুমায়ুন রশিদ চৌধুরী, সিলেট জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি এডভোকেট মোঃ জামিলুল হক জামিল ও সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট হোসেন আহমদ, খেলাফত মজলিসের যুগ্ম মহাসচিব মুহাম্মদ মুনতাসির আলী, সিলেট সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মফিজুর রহমান বাদশা ও সাধারণ সম্পাদক মো. নিজাম উদ্দিন চেয়ারম্যান, সেক্টর কমান্ডারর্স ফোরাম মুক্তিযুুদ্ধ-৭১ সিলেট বিভাগীয় কমিটির সভাপতি ও কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক এডভোকেট সরওয়ার আহমদ চৌধুরী আবদাল ও সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা আকরাম আলী, সিলেট মহানগর শ্রমিক লীগের সভাপতি এম. শাহরিয়ার কবির সেলিম ও সাধারণ সম্পাদক নাজমুল আলম রোমেন, সিলেট মহানগর স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি কাউন্সিলর আফতাব হোসেন খান ও সাধারণ সম্পাদক দেবাংশু দাস মিঠু, জাসদ কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ও সিলেট জেলা জাসদ সভাপতি লোকমান আহমদ, জাসদ সিলেট মহানগর শাখার সভাপতি মিশফাক আহমদ চৌধুরী মিশু, জাসদ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ও সিলেট জেলা নারী জোট সভাপতি শামীম আখতার, সিলেট জেলা জাতীয় পার্টির আহ্বায়ক এ. টি. ইউ তাজ রহমান ও সদস্যসচিব ও কেন্দ্রীয় সদস্য মো. উসমান আলী চেয়ারম্যান, খেলাফত মজলিস সিলেট মহানগরীর সভাপতি আলহাজ্ব মাওলানা গাজী রহমত উল্লাহ ও সাধারণ সম্পাদক আলহাজ্ব মাওলানা এমরান আলম, সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক রুহেল আহমদ, ছাতক উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি এডভোকেট ছায়দুর রহমান ছায়াদ, ছাতক উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক কৃপেশ চন্দ, ছাতক উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম সম্পাদক জয়নাল আবেদীন, সিলেট জেলা ক্রীড়া সংস্থার প্রাক্তন সহ-সভাপতি হাজী এম.এ. সাত্তার , বিরাজ মাধব চক্রবর্ত্তী মানস, বিমলেন্দু দে নান্টু ও জুনেদ আহমদ, সিলেট বিভাগীয় ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক মারিয়ান চৌধুরী মাম্মী, কোষাধ্যক্ষ সৈয়দ তকরিমুল হাদী কাবী, সাবেক সহ সাধারণ সম্পাদক ইমরান আহমদ, সাবেক কোষাধ্যক্ষ সাহিদ আহমদ চৌধুরী জুয়েল, কার্যনির্বাহী সদস্য পাপলু দত্ত ও সুমাত নুরী চৌধুরী জুয়েল, অনির্বাণ ক্রীড়া চক্রের সভাপতি গোলাম জাবির চৌধুরী জাবু ও সাধারণ সম্পাদক আলী ওয়াসিক উজ্জ জামান চৌধুরী অনি, সিলেট জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাবেক সাধারণ সম্পাদক আব্দুল হালিম (সুনু মিয়া), সিলেট জেলা ফুটবল এসোসিয়েশনের ভাইস-প্রেসিডেন্ট মঈন উদ্দিন আহমদ ও আব্দুল মালিক রাজা, কোষাধ্যক্ষ আব্দুর রকিব, কার্যনির্বাহী সদস্য নুরে আলম খোকন, সমর চৌধুরী, মাসুক মিয়া, আজাদুর রহমান আজাদ, মাহমুদ হোসেন শাহীন, ফাহমিন মুর্শেদ চৌধুরী ও জাহান ই আলম নুরী চৌধুরী রাহেল, সিলেট বিভাগীয় ক্রিকেট কমিটির সভাপতি যায়েদ আহমদ চৌধুরী ও সম্পাদক মোস্তফা ফরিদুল হোসেন কোরেশী, সিলেট জেলা ক্রিকেট কমিটির সহকারী সম্পাদক জয়দীপ দাস সুজক, ১ম বিভাগ ক্রিকেট লীগ কমিটির সম্পাদক এটিএম ইকরাম, বিসিবি’র সিলেট বিভাগীয় ক্রিকেট কোচ এ কে এম মাহমুদ ইমন ও সিলেট জেলা ক্রিকেট কোচ মো. রানা মিয়া প্রমুখ। বাংলাদেশ ফটো জার্নালিস্ট এসোসিয়েশন সিলেট বিভাগীয় কমিটি, বিশ্বনাথ প্রেসক্লাবের সভাপতি কাজী মুহাম্মদ জামাল উদ্দিন, সহ সভাপতি তজম্মুল আলী রাজু, সাধারণ সম্পাদক প্রনঞ্জয় বৈদ্য অপু, যুগ্ম সম্পাদক এমদাদুর রহমান মিলাদ, কোষাধ্যক্ষ মোহাম্মদ আলী শিপন, কার্যনির্বাহী সদস্য মিজানুর রহমান মিজান, রফিকুল ইসলাম জুবায়ের, সদস্য মাওলানা শহীদুর রহমান, নূর উদ্দিন, জামাল মিয়া, আবুল কাশেম।

শেয়ার করুন
প্রথম পাতা এর আরো সংবাদ
  • দুই মামলায় মির্জা ফখরুলসহ ১৩৫ আসামী
  • খালেদার জামিন আবেদন সর্বোচ্চ আদালতেও নাকচ
  • বিজয়ের মাস
  • ঘুষ ও দুর্নীতির ব্যাপারে সরকারি কর্মকর্তাদের সতর্ক থাকার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর
  • খালেদা জিয়ার জামিন নিয়ে সরকারের কিছু করার নেই -------কাদের
  • বাংলাদেশ তথ্যপ্রযুক্তি খাতের নতুন বিশ্বশক্তি হতে যাচ্ছে
  • মিয়ানমারকে বিশ্বাস করার কারণ নেই: গাম্বিয়া
  • বিনম্র শ্রদ্ধায় মহীয়সী নারী রাবেয়া খাতুন চৌধুরীর ত্রয়োদশ মৃত্যুবার্ষিকী পালিত
  • ছবি
  • সাধারণ মানুষের সেবায় নিজেকে নিবেদিত করেছি
  • বিজয়ের মাস
  • খালেদা জিয়ার মেডিকেল রিপোর্ট আদালতে
  • ২০৩০ সালের আগেই দেশ থেকে কুষ্ঠ রোগ নির্মূল করতে চাই --------------প্রধানমন্ত্রী
  • আওয়ামী লীগে আর দূষিত রক্ত রাখা হবে না
  • ডিজিটাল বাংলাদেশ দিবস আজ
  • গোলাপগঞ্জ মুক্ত দিবস আজ
  • মহীয়সী নারী বেগম রাবেয়া খাতুন চৌধুরীর ত্রয়োদশ মৃত্যুবার্ষিকী আজ
  • জাতিসংঘের আদালতে রোহিঙ্গা গণহত্যার শুনানি শুরু
  • তৃণমূল নেতা কর্মীরা আওয়ামী লীগের প্রাণ : ওবায়দুল কাদের
  • ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর বক্তব্যের প্রতিবাদ জানিয়েছে বিএনপি
  • Developed by: Sparkle IT