স্বাস্থ্য কুশল

হোমিও চিকিৎসায় ডেঙ্গু নিরাময়

ডা: আব্দুর রহমান (মানিক) প্রকাশিত হয়েছে: ০২-০৯-২০১৯ ইং ০০:৩৩:৫০ | সংবাদটি ৫৩ বার পঠিত

দেশে এবার ডেঙ্গু ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে। কয়েকজন ডাক্তারের মৃত্যু এর ভয়াবহতাকে বহুগুণ বাড়িয়ে দিয়েছে। ফলে দেশবাসী আতঙ্কগ্রস্ত হয়ে পড়েছেন।
কেউ কেউ নাক সিটকাতে পারেন, তারপরও দ্ব্যর্থহীন ভাষায় বলছি-ডেঙ্গু নিরাময়ের উপযুক্ত চিকিৎসা হোমিওপ্যাথিতে আছে। শুধু তাই নয়, গত দু’সপ্তাহের মধ্যে ঢাকার কয়েকজন রোগীকে ডেঙ্গু সাদৃশ্য জ্বরের চিকিৎসা দিয়েছি। আল্লাহর মেহেরবানীতে তারা সুস্থ হয়েছেন। প্রথমেই বলে রাখি-হোমিওপ্যাথিতে রোগের নাম নিয়ে ওষুধ দেয়া হয় না। দেয়া হয় লক্ষণের ভিত্তিতে। তাই ডেঙ্গু নামক জ্বরের লক্ষণ বিবেচনায় নি¤েœাক্ত ঔষধগুলো যথাযথ প্রয়োগে রোগী সহজেই আরোগ্য লাভ করতে পারেন।
১। জ্বর, গাত্রবেদনা, শীতবোধ, থরথর করে কাঁপে, আক্ষেপ, পিপাসাহীনতা, ভীষণ মাথাব্যথা, নাড়ি ধীর, জ্বরকালে চুপচাপ শুয়ে থাকেÑ জেলসিমিয়াম।
২। জ্বর, গাত্রবেদনা, চোখ-মুখ লালবর্ণ, মাথা গরম, পা ঠান্ডা, পিপাসাহীনতা, ঘুমে হঠাৎ চিৎকার দিয়ে উঠেÑ বেলেডোনা।
৩। জ্বর, গাত্রবেদনা, মাথাব্যথা, মাথাঘুরানী, জিহ্বা হলদে, মুখে তিতাবোধ, মুখের কোণ ফাটা, প্রবল পিপাসা, হিক্কা, পিত্তবমিÑ ইউপেটো পার্ফ।
৪। জ্বর, গাত্রবেদনা, শীতবোধ, অস্থিরতা, কম্পন, শুষ্ক কাঁশি, জিহ্বা বাদামী বর্ণ। তবে আগা লালবর্ণ, চর্মে লাল লাল দাগ বা ফুসকুড়ি, মল তরল, খুব দুর্বলতাÑ রাসটক্স।
৫। জ্বর, গায়ে জ্বালা, মাথাব্যথা, পিপাসাহীনতা, শীতবোধ, বমিভাব, কষ্টকর কাশি, অস্থিরতা, উদ্বেগ, ঘর্মাবস্থায় পিপাসা, মুখে তিতাবোধ বা বিস্বাদ, তরল মল, খুব দুর্বলতা, পা ফোলা, দুপুরে ও মধ্যরাত্রে বৃদ্ধি, বাহিরে শীতবোধ, কিন্তু ভিতরে জ্বালাবোধ, নখ ও ঠোট নীলাভ বর্ণ, মৃত্যুভয়Ñ আর্সেনিক এলবাম।
৬। জ্বর, সর্বাঙ্গে প্রবল ব্যথা, শীতকাতর, অবসন্নতা ও দুর্বলতা, নিদ্রালুতা, প্রশ্ন করলে উত্তর দিতে না দিতে ঘুমিয়ে যায়, জিহ্বা সাদা বা কটা বর্ণ, বিড়বিড় করে বকে, বিছানায় কি যেন হাতড়ায়, মল-মূত্র, ঘর্মে খুব দুর্গন্ধÑ ব্যাপটিশিয়া।
৭। জ্বর, ত্বকের নিচে রক্ত সঞ্চয়, রক্ত যুক্ত তরল মল, হাত-পা ঠান্ডা, থেকে থেকে দেহ গরম হয়, ঘাম রক্তবর্ণ ও ঠান্ডা, প্রবল মাথাব্যথা ও পিটে ব্যথা, দেহে কালচে দাগ, রোগী প্রলাপ বকে ও ভয়ানক চিৎকার করে। তরল কালছে বর্ণ মল, একই সাথে বমি ও মূল-মূত্র ত্যাগÑ ক্রোটেলাস।
৮। সবিরাম জ্বর, তীব্র শীতবোধ, মাথা গরম, মুখমন্ডল লালবর্ণ, পা খুব ঠান্ডা, ত্বকের নীচে রক্ত জমা হয়ে লাল বা নীল বর্ণ, জিহ্বা-শুষ্ক ও কালচে বর্ণ, জিহ্বায় জড়তা, সারাদেহে চুলকানী ও জ্বালা, নাক দিয়ে রক্তপাতÑ ল্যাকেসিস।
এছাড়াও মেটেরিয়া মেডিকায় বর্ণিত যে কোন ঔষধ লক্ষণ সাদৃশ্যে প্রয়োগ করার প্রয়োজন হতে পারে।

শেয়ার করুন
স্বাস্থ্য কুশল এর আরো সংবাদ
  • রোগ প্রতিরোধে কাঁচা মরিচ
  • পেঁয়াজের যত গুণ
  •  ফুটপাতের শরবত আর চাটনি : সংকটে জনস্বাস্থ্য
  • মানব দেহে খাবারের প্রভাব
  • ডায়াবেটিসজনিত চোখের সমস্যা
  • যে কারণে আমরা মূল্যবান দাঁতকে নষ্ট করছি
  • মশা থেকে যত রোগ
  • হোমিও চিকিৎসায় ডেঙ্গু নিরাময়
  • পুড়ে গেলে কী করবেন
  • এডিস মশা ডেঙ্গু ছড়ায়
  • রোগ প্রতিরোধে আনারস
  • স্থূলতা : এখনই ব্যবস্থা জরুরি
  • মেহেদীর কতো গুণ
  • যে সব খাবার স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর
  • শিশুকে ওষুধ দিন বয়স ও ওজন অনুযায়ী
  • জ্বর কমার পরের সময়টা ঝুঁকিপূর্ণ
  • কম্পিউটারজনিত চক্ষু সমস্যা
  • ডেঙ্গু ও চিকুনগুনিয়া জ্বরের লক্ষণ
  • ডেঙ্গু প্রতিরোধের উপায়
  • সুস্থ থাকতে ওজন নিয়ন্ত্রণ
  • Developed by: Sparkle IT