প্রথম পাতা

আসামে অমিত শাহ্ প্রত্যেক অবৈধ অনুপ্রবেশকারীকে তাড়ানো হবে

প্রকাশিত হয়েছে: ০৯-০৯-২০১৯ ইং ০৩:৫৮:২২ | সংবাদটি ৫০ বার পঠিত

ডাক ডেস্ক: জাতীয় নাগরিকপঞ্জীতে বাদ পড়া সবাইকে ভারত থেকে তাড়িয়ে দেয়ার ঘোষণা দিয়েছেন দেশটির স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। কেন্দ্রে মন্ত্রী পদ পাওয়ার পর রোববার প্রথমবার আসাম সফর করেন তিনি। এ সময় এনআরসি’র চূড়ান্ত তালিকায় বাদ পড়াদের বিষয়ে তিনি বলেন, প্রত্যেক অবৈধ অনুপ্রবেশ-কারীকে তাড়ানো হবে। এ খবর দিয়েছে এনডিটিভি।
গত ৩১শে আগস্ট আসামের জাতীয় নাগরিকপঞ্জীর চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশ করা হয়। এতে ১৯ লাখেরও বেশি মানুষকে বিদেশি বলে ঘোষণা করে আসাম কর্তৃপক্ষ। রোববারই তা নিয়ে প্রথম মুখ খুললেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ্্। আসামের রাজধানী গুয়াহাটিতে উত্তর-পূর্বের কাউন্সিল বৈঠকে তিনি বলেন, জাতীয় নাগরিকপঞ্জী নিয়ে বিভিন্ন মানুষ বিভিন্ন রকম প্রশ্ন তুলেছেন। আমি স্পষ্টভাবে বলতে চাই, ভারত সরকার, একজন অবৈধ অনুপ্রবেশকারীকেও এদেশে থাকতে দেবে না। এটা আমাদের প্রতিশ্রুতি। তিনি আরো ঘোষণা করেন, সংবিধানের ৩৭১ ধারা, যা উত্তর পূর্বের রাজ্যগুলোকে বিশেষ সুবিধা দিয়ে থাকে, তা প্রত্যাহার করা বা বিকল্প করার কোনো উদ্দেশ্য নেই কেন্দ্রের।
উল্লেখ্য, আসামের জাতীয় নাগরিকপঞ্জীর চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশের পর, বহু বাঙালি হিন্দুর নাম বাদ পড়ায় ক্ষুব্ধ বিজেপি নেতৃত্বের একাংশ। এই বাঙালি হিন্দুদের সংখ্যা আসামের মোট জনসংখ্যার ১৮ শতাংশ এবং দলেরও ভোটব্যাঙ্ক হিসেবে কাজ করতো এই হিন্দুরা। ২০১৯ লোকসভা নির্বাচনে আসামে ১৪টি আসনে জিতেছে বিজেপি, তারমধ্যে রয়েছে আদিবাসী, হিন্দু ও বাঙালি হিন্দু সমপ্রদায়ের ভোট। বিজেপি বিধায়ক শিলাদিত্য দেব অভিযোগ করেন, হিন্দুদের তাড়ানো এবং মুসলিমদের সাহায্য করারই অংশ এনআরসি। তিনি আরো অভিযোগ করেন, এনআরসির চূড়ান্ত তালিকা দুর্নীতিতে ভরা। গত বছর, অমিত শাহের সঙ্গে বৈঠক করে জাতীয় নাগরিকপঞ্জীর চূড়ান্ত তালিকা পরিষদীয় আইন বা অধ্যাদেশের মাধ্যমে পুনরায় পরীক্ষার প্রস্তাব দেন আসামের মুখ্যমন্ত্রী সর্বানন্দন সোনওয়াল।
চলতি বছরের গোড়ার দিকে, লোকসভা নির্বাচনে রাজস্থানে প্রচারের সময়, বাংলাদেশি শরণার্থীদের উইপোকা বলে মন্তব্য করেন অমিত শাহ। উত্তর-পূর্বের রাজ্যগুলোকে বিশেষ ক্ষমতা দেয়া সংবিধানের ৩৭১ ধারার বদল বা প্রত্যাহারের করার কেন্দ্রের কোনো উদ্দেশ্য নেই বলেও জানান কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। ৩৭০ এবং ৩৭ ধারা মধ্যে অনেক পার্থক্য রয়েছে বলেও মন্তব্য করেন তিনি।
জম্মু ও কাশ্মীরের মতো উত্তর-পূর্বেও পদক্ষেপ করা হতে পারে বলে আশঙ্কা তৈরি হয়েছে, তা নিয়ে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ বলেন, সংসদে আমি স্পষ্টভাবে জানিয়েছি, এটা হবে না এবং আমি উত্তর পূর্বের ৮ মুখ্যমন্ত্রী উপস্থিতিতে আজ আবারও বলছি, ৩৭১ ধারায় হাত দেবে না কেন্দ্রীয় সরকার।

শেয়ার করুন
প্রথম পাতা এর আরো সংবাদ
  • নিরাপত্তা চেয়ে সিলেটের ৫৬ টেলিভিশন সাংবাদিকের জিডি
  • শাবি উপাচার্যের বিরুদ্ধে বেনামে শে^তপত্র প্রকাশ উন্নয়ন প্রকল্পে হরিলুট করতে চায় একটি চক্র: উপাচার্য
  • সিলেটে সমাবেশ করার জন্য প্রস্তুত বিএনপি
  • জাতিসংঘের সাধারণ অধিবেশনে যোগ দিতে নিউইয়র্কের পথে প্রধানমন্ত্রীর আবুধাবী ত্যাগ
  • গুলশানে তিনটি স্পা সেন্টারে অভিযান, আটক ১৯
  • ব্যর্থ সরকার জুয়ার আশ্রয় নিয়েছে: ফখরুল
  • টেন্ডারবাজ, চাঁদাবাজ ও দখলবাজদের রক্ষা নেই: কাদের
  • তিন উপজেলায় লিফলেট বিতরণকালে আটক ১২
  • নদীতে লাফ দিয়ে নিখোঁজের ১৩ ঘন্টা পর ছাতকে যুবলীগ নেতার লাশ উদ্ধার
  • প্রেসিডিয়াম গঠন আজ ॥ সভাপতিসহ তিনটি পদে মনোনয়ন জমা দিয়েছে দুটি প্যানেল
  • লিডিং ইউনিভার্সিটি উচ্চ শিক্ষার অনন্য সূতিকাগার
  • সংখ্যাগরিষ্টতা পেয়েছে সম্মিলিত ব্যবসায়ী পরিষদ
  • আফগানদের হারালো বাংলাদেশ
  • দুর্নীতির দায় নিয়ে সরকারের পদত্যাগ করা উচিত : বিএনপি
  • সারাদেশে পর্যায়ক্রমে দুর্নীতিবিরোধী অভিযান পরিচালিত হবে -------ওবায়দুল কাদের
  • ডা.দেওয়ান নূরুল হোসেন চঞ্চলের মৃত্যুবার্ষিকী আজ
  • জি কে শামীম ১০ দিনের রিমান্ডে
  • ঝুঁকিপূর্ণ সিলেট রেলপথ
  • কলাবাগান ক্রীড়াচক্রের ফিরোজ ১০ দিনের রিমান্ডে
  • ভোলাগঞ্জ সাদা পাথর থেকে দুই জনের লাশ উদ্ধার
  • Developed by: Sparkle IT