প্রথম পাতা ইউক্রেন থেকে ফ্রান্স যাওয়ার পথে নিখোঁজ

স্লোভাকিয়ার জঙ্গল থেকে উদ্ধার বিশ্বনাথের ফরিদের লাশ

কাউসার চৌধুরী/এমদাদুর রহমান মিলাদ প্রকাশিত হয়েছে: ১৪-০৯-২০১৯ ইং ০২:৩২:১৪ | সংবাদটি ৩৯৯ বার পঠিত

  
০ পরিবারে শোকের মাতম ০ চুক্তি রাশিয়ায়-টাকা দেয়া হয় বিয়ানীবাজারে
০ লাশ দেশে আনতে সরকারের হস্তক্ষেপ কামনা হতভাগ্য পিতার’

ইউক্রেন থেকে ফ্রান্স যাওয়ার পথে নিখোঁজ বিশ্বনাথের ফরিদ উদ্দিন আহমদের (৩৫) লাশ সেøাভাকিয়ার জঙ্গল থেকে উদ্ধার করা হয়েছে। গত সোমবার স্থানীয় পুলিশ স্টারিনা জঙ্গলের দুর্গম পাহাড়ি এলাকা থেকে লাশটি উদ্ধার করে। নিহতের সহোদর গিয়াস উদ্দিন সিলেটের ডাককে এর সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, বৈধভাবে ফ্রান্স পৌঁছানোর কথা বলে দালাল চক্র টাকা নেয়। কিন্তু তারা প্রতারণা করে আমার ভাইকে জঙ্গলে নিয়ে হত্যা করে ফেলে চলে যায়। আমরা এর বিচার চাই।
লাশের সন্ধান যেভাবে
নিহতের ফুফাতো ভাই যুক্তরাজ্য প্রবাসী আবু বক্কর সিলেটের ডাককে জানান, গত ৯ সেপ্টেম্বর সোমবার সেøাভাকিয়ার ‘জওজে টিভি’র বরাত দিয়ে সেদেশের ‘নোভেনী ডট এসকে’ নামের একটি অনলাইন নিউজ পোর্টাল একটি লাশ উদ্ধারের সংবাদ প্রকাশ করে। এতে বলা হয়, ‘আনুমানিক ৩০ বছর বয়সী ইউরোপিয়ান নাগরিক নন এমন একজন অজ্ঞাতনামা ব্যক্তিকে সেøাভাকিয়ার স্টারিনা জঙ্গলে একজন পর্যটক দেখতে পেয়ে পুলিশকে জানান। খবর পেয়ে তাৎক্ষণিক উদ্ধারকারী দল ও পুলিশ গিয়ে লাশটি উদ্ধার করে’। নিহত ফরিদের স্বজনরা এই সংবাদটি দেখে সেøাভাকিয়ার পুলিশ কর্মকর্তাদের সাথে যোগাযোগ করেন। সেখানকার পুলিশকে ইমেইলে ফরিদের ছবিসহ বিস্তারিত তথ্য দেন। এরপর পুলিশ প্রাথমিকভাবে নিশ্চিত হয়, উদ্ধারকৃত লাশই ফরিদের। পুলিশ স্বজনদেরকে সেøাভাকিয়ায় গিয়ে লাশ শনাক্তের জন্যে অনুরোধ করে। এছাড়াও নিহতের সহোদর কাওসার যুক্তরাজ্যের সেøাভাকিয়ার দূতাবাসে ফরিদের নিখোঁজের ঘটনা উল্লেখ করে ভাইকে ফিরে পেতে আবেদন করেন।
লন্ডন থেকে ছুটে যান স্বজনরা
নিহতের পরিবার সূত্রে জানা গেছে, লাশ উদ্ধারের পর নিহতের চাচা আলকাছ আলী আওলাদ ব্রিটিশ সরকারের অনুমতি নিয়ে সেøাভাকিয়ায় যান। নিহত ফরিদের এক চাচাতো বোনকে নিয়ে গত বৃহস্পতিবার সেøাভাকিয়ায় পৌঁছেন আলকাছ আলী আওলাদ। সেখানে পৌঁছে কৌচি শহরের একটি মর্গে গিয়ে ভাতিজা ফরিদ উদ্দিন আহমদের লাশ শনাক্ত করেন তিনি। নিহতের সহোদর গিয়াস উদ্দিন বলেন, লাশ শনাক্তের পর লাশ দেশে আনার জন্য চেষ্টা চলছে। এজন্যে সরকারের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের হস্তক্ষেপ কামনা করেন তিনি। সেখানকার পুলিশ লাশ উদ্ধারের পর ময়নাতদন্ত করা হয় বলে জানানো হয়েছে। তবে ময়নাতদন্তের রিপোর্ট এখনো আমাদেরকে দেয়া হয়নি।
স্বজনদের আহাজারী থামছে না
জানা গেছে, নিহত ফরিদ উদ্দিন আহমদ বিশ্বনাথ উপজেলার কারিকোনার মোঃ সমসাদ আলীর পুত্র। ৬ পুত্র ও ১ কন্যা সন্তানের মধ্যে সবার বড় সন্তান ফরিদকে হারিয়ে বাকরুদ্ধ হতভাগ্য পিতা সমসাদ আলী। গতকাল শুক্রবার সকালে নিহতের বাড়িতে গিয়ে দেখা যায়, পরিবারের সদস্যরা আহাজারী করছেন। মৃত্যুর সংবাদটি এলাকায় প্রচার হলে লোকজন ভীড় করেন। লোকে লোকারণ্য বাড়িটিতে শোকাহত পরিবারের আহাজারীতে সেখানকার পরিবেশ ভারী হয়ে উঠে। প্রিয়তমা স্ত্রী শিক্ষিকা সেলিনা সুলতানাকে সান্ত¦না দেয়ার ভাষা নেই কারো। ভাইবোনসহ স্বজনরা পাগলের মতো বিলাপ করছেন। মেধাবী ফরিদ বিশ্বনাথের রামসুন্দর উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এসএসসি পাশের পর এমসি কলেজে ভর্তি হন। এইচএসসি ও মাস্টার্স পাস করেন এমসি কলেজ থেকেই। সিলেট ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি থেকে এমবিএ পাস করেন। ২০১৪ সালের ১ আগস্ট সেলিনা সুলতানাকে বিয়ে করেন। স্ত্রী সেলিনা সুলতানা উপজেলার রামধানা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সহকারী শিক্ষক পদে কর্মরত। তাদের ৫ বছরের সংসার জীবনে ৩ বছর বয়সী ইরা তাসফিয়া নামের এক কন্যা সন্তান রয়েছে। অবুঝ তাসফিয়া পিতার সাথে মোবাইলে কথা বলতে বার বার মায়ের কাছে আবদার করছে।
ব্যাংকে ইস্তফা দিয়ে ইউরোপের উদ্দেশ্যে-
পরিবারের লোকজনের সাথে কথা বলে জানা গেছে, শিক্ষাজীবন সম্পন্নের পর মেধাবী ছাত্র ফরিদ উদ্দিন আহমদ প্রথমে একটি প্রাইভেট প্রতিষ্ঠানে শিক্ষক হিসেবে যোগ দেন। এরপর যোগ দেন বেসরকারি মোবাইল অপারেটর ‘বাংলা লিংক’ এ। ‘বাংলালিংক’ এ কাস্টমার কেয়ারে কিছুদিন কর্মরত থাকার পর ইস্টার্ন ব্যাংক বিশ্বনাথ শাখায় সহকারী কর্মকর্তা হিসেবে যোগ দেন। প্রায় ৬ বছর ব্যাংকে চাকুরি করে হঠাৎ করেই ব্যাংকের চাকুরি থেকে ইস্তফা দিয়ে ইউরোপের উদ্দেশ্যে পাড়ি দিতে সিদ্ধান্ত নেন। ২০১৮ সালের ২০ জুন ফিফা ওয়ার্ল্ড কাপ দেখতে রাশিয়া যান। রাশিয়া থেকে যান ইউক্রেনে।
‘আমার লাগি দোয়া করিও’
এদিকে স্বপ্নের দেশ ইউরোপের ফ্রান্সে যেতে ইউক্রেন থেকে দালালচক্রের সাথে চুক্তি করেন ফরিদ। প্রায় ১৫ মাস ইউক্রেনে অবস্থানের পর গত ২৭ আগস্ট ইউক্রেন থেকে ফ্রান্সের উদ্দেশ্যে দালালের সাথে রওয়ানা হন। ঐদিন বাড়ির লোকজনের সাথে ফোনে কথা বলেন ফরিদ। নিহতের সহোদর গিয়াস উদ্দিন জানান, ২৭ আগস্ট ফোনে বলেছিলেন, ‘আমার লাগি দোয়া করিও। যে কোনো সময় ফ্রান্সের উদ্দেশ্যে চলে যাব। আমার জন্যে সকলকে দোয়া করতে বলিও’। এরপর আর পরিবারের কারো সাথে ফরিদ যোগাযোগ করেননি। ২৮ আগস্ট ফ্রান্সের উদ্দেশ্যে রওয়ানা হন তারা। দালালসহ ৬ জন পায়ে হেঁটে রওয়ানা হন। ২ সেপ্টেম্বর ফরিদের সঙ্গী ফরিদের সহোদর যুক্তরাজ্যে অবস্থানরত কাওসার আলীকে ফোন করে জানান, তারা ৬ জন যাত্রা শুরু করেন। পায়ে হেঁটে ফ্রান্স পৌঁছতে সময় লাগে ৫ দিন। কিন্তু তাদের সাথে খাবার ছিল ২ দিনের। সাথে থাকা খাবার শেষ হয়ে গেলে তাদেরকে শুকরের মাংস খেতে দেয় দালাল। শুকরের মাংস খেতে অপারগতা জানায় ফরিদ। সাথে থাকা খেজুর খেয়ে আরো একদিন কাটান তিনি। পায়ে হেঁটে তারা সেøাভাকিয়ার একটি জঙ্গলে পৌঁছেন। জঙ্গলে পৌঁছার পর খাবার শেষ হয়ে যাওয়ায় বাধ্য হয়েই শুকরের মাংস খান। শুকরের মাংস খাবারের পরই ফরিদ অসুস্থ হয়ে পড়েন। নাকে-মুখে রক্ত বেরিয়ে আসে। বমি আর ডায়রিয়া হতে থাকলে একেবারে দুর্বল হয়ে যান। জঙ্গলে তারা রাতে ঘুমিয়ে পড়লে হঠাৎ একটি বিকট শব্দে ঘুম ভাঙে তাদের। জেগে দেখেন ফরিদ পাশে নেই। ফরিদকে খুঁজকে খুঁজতে না পেয়ে তারা ফরিদ ছাড়াই ফ্রান্স পৌঁছেন। এই দলে কানাইঘাট উপজেলার নাজির, নবীগঞ্জ উপজেলার সোহাগ, দিলদার ও বুরহান নামের ৪ জন ছিল।
টাকা দেয়া হয় বিয়ানীবাজারে
নিহত ফরিদের সহোদর গিয়াস উদ্দিন জানান, ইউক্রেন থেকে ফ্রান্স পৌঁছতে দালালের সাথে চুক্তি করেন ফরিদ। এজন্যে ৭ লাখ টাকাস্থ মধ্যস্থতা করা হয়। ইউক্রেনে এ বিষয়ে আলাপ-আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নেয়া হলেও চুক্তির ৭ লাখ টাকা দেয়া হয় বিয়ানীবাজারে।
তিনি জানান, বিয়ানীবাজারের কামাল নামের এক ব্যক্তির নিকট ৭ লাখ টাকা দেয়া হয়। যে যেতে চায় কামালের নিকটই টাকা দিতে হবে। নিচতলায় ফার্মেসি আর ফার্মেসির ২য় তলায় কামালের অফিস। এই অফিসে গিয়েই আমরা টাকা দিয়ে এসেছি। যারা ইউক্রেন থেকে ফ্রান্স লোক পাঠায় কামাল তাদেরই একজন। সেখানে দালাল আর দেশে দালালের হয়ে কামাল টাকা গ্রহণ করেন।
রাশিয়ার দালাল লিটন বড়–য়া
রাশিয়ায় অবস্থানরত দালাল লিটন বড়–য়ার সাথে চুক্তি করে ফরিদ। লিটন ইউক্রেন থেকে ফ্রান্স পৌঁছানোর জন্যে সকল পথ দেখিয়ে বিস্তারিত পরামর্শ দেন। চট্টগ্রামের বাসিন্দা লিটনকে মূলত রাশিয়ায় বাঙালিরা দাদা নামেই চেনেন। বিয়ানীবাজারের কামাল রাশিয়ায় থাকা দালাল লিটন বড়–য়ার এজেন্ট বলে নিহত ফরিদের পরিবার সংশ্লিষ্ট সূত্র জানিয়েছে। রাশিয়ায় পৌঁছতে দালাল লিটনকে ফরিদ কত টাকা দিয়েছেন তা জানা যায়নি। নিহতের সহোদর গিয়াস উদ্দিন বলেন, লিটনের মাধ্যমে কত টাকায় রাশিয়া যান তা ভাইছাব আমাদেরকে বলেননি।
হতভাগ্য সমসাদ আলীর আকুতি
এদিকে পুত্রের এমন করুণ ঘটনায় হতভাগ্য পিতা মোঃ সমসাদ আলী গত বৃহস্পতিবার বিশ্বনাথ থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন। বিশ্বনাথ থানার জিডি নং ৬২৭। জিডিতে তিনি বিস্তারিত বর্ণনা দেন। এ ঘটনায় জড়িত দালাল চক্রের বিচারের দাবি জানিয়ে তিনি বলেন, আমার ছেলেকে সেøাভাকিয়ার জঙ্গলে হত্যা করে ফেলে যায় দালালরা। না হয় এভাবে প্রতারণা করবে কেন। দালাল বলেছিল বাসে যাবে-কোনো সমস্যা হবে না। পরে কেন আমার ছেলেকে রেখেই চলে গেল। আমি এই চক্রের বিচার চাই। তিনি বলেন, সে আমার বড় সন্তান। সন্তানের জন্যে পিতার মন কতটুকু কাঁদে তা আমার মতো হতভাগ্য পিতা ছাড়া কেউ বুঝবে না। যাতে তার লাশ দেশে আনা যায় এজন্যে তিনি প্রধানমন্ত্রী, পররাষ্ট্রমন্ত্রী, প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রীসহ সংশ্লিষ্ট সকলের হস্তক্ষেপ কামনা করেন।
এদিকে নিহতের ঘনিষ্ঠ বন্ধু বাংলাদেশ ব্যাংকের কর্মকর্তা ও সাবেক সাংবাদিক সিদ্দিকুর রহমান সুমন জানান, ফরিদ খুবই শান্ত ও ভদ্র ছিল। তার এই মৃত্যু মেনে নেয়ার মতো নয়। এ ধরনের মৃত্যু কারো কাম্য নয়। এর সাথে জড়িতদের অবশ্যই শাস্তি হওয়া উচিত।
বিশ্বনাথ থানার ওসি শামীম মুসা সিলেটের ডাককে বলেন, নিয়ম অনুযায়ী এ ঘটনায় আদালতে মানব পাচারের মামলা করা যাবে। পুলিশ অবশ্যই নিহতের পরিবারকে প্রয়োজনীয় সহযোগিতা করবে।

 

শেয়ার করুন
প্রথম পাতা এর আরো সংবাদ
  • পৌরসভায় উন্নীত বিশ্বনাথ
  • ‘রবীন্দ্র শতবর্ষ স্মরণোৎসব’ উদযাপন কমিটি পুনর্গঠন
  • রক্তদান একটি মানবিক কাজ --------দানবীর ড. রাগীব আলী
  • বিভাগীয় শহর হলেই ফরিদপুর সিটি কর্পোরেশন
  • বিএনপির এমপি হারুনকে ৫ বছরের কারাদন্ড
  • আত্মরক্ষার্থে ভোলায় গুলি চালিয়েছে পুলিশ: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী
  • সরকারি চাকুরেদের গ্রেফতারের অনুমতির বিধান নিয়ে হাই কোর্টের রুল
  • ওমর ফারুক ও তার পরিবারের ব্যাংক লেনদেন স্থগিত
  • বোরহানউদ্দিনের সেই শুভসহ তিনজন কারাগারে
  • ভোলায় ৭২ ঘণ্টার আল্টিমেটাম ‘সর্বদলীয় মুসলিম ঐক্য পরিষদের’
  • বাংলাদেশের তৈরি পোশাক খাতে শ্রমিকের নিরাপত্তা নিয়ে কাজ করছে যুক্তরাষ্ট্র --------------মার্কিন রাষ্ট্রদূত আর্ল মিলার
  • সোহরাওয়ার্দীতে সমাবেশের অনুমতি পায়নি ঐক্যফ্রন্ট
  • আসামের গুয়াহাটিতে বাংলাদেশ ভারত স্টেক হোল্ডার বৈঠক আজ
  • বাবা ও দুই চাচা ফের রিমান্ডে
  • শাবি’র তৃতীয় সমাবর্তন ৮ জানুয়ারি
  • ওয়ার্ড-ইউনিয়নের সম্মেলন না করেই উপজেলা সম্মেলনের তারিখ ঘোষণা
  • প্রধানমন্ত্রী ভোলার ঘটনায় ধৈর্য্যরে আহ্বান জানিয়েছেন দেশবাসীর প্রতি
  • ওয়ান স্টপ সার্ভিস একপে, একসেবা ও একশপ উদ্বোধন করেন সজিব ওয়াজেদ জয়
  • ওমর ফারুককে যুবলীগ চেয়ারম্যান থেকে অব্যাহতি
  • ‘জনগণ ভোট দিতে পারেনি’ বক্তব্যের ব্যাখ্যা দিলেন মেনন
  • Developed by: Sparkle IT