শেষের পাতা

পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সাথে প্রতারণাকারী চট্টগ্রামে আটক

প্রকাশিত হয়েছে: ০৮-১০-২০১৯ ইং ০২:৫৯:৪০ | সংবাদটি ২০০ বার পঠিত

ডাক ডেস্ক : পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও সিলেট-১ আসনের সাংসদ ড. এ কে আব্দুল মোমেনের কাছ থেকে প্রতারণার মাধ্যমে টাকা নেয়ার মামলায় একজনকে আটক করেছে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের(পিবিআই) একটি টিম। গত শনিবার চট্টগ্রাম থেকে গ্রেফতার করা হয় প্রতারক আবু তৈয়ব (২৪) নামের যুবককে। তাকে সিলেটে এনে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে। আবু তৈয়ব চট্টগ্রামের বোয়ালখালি থানার উত্তর কনুজুরীর আব্দুল আলিমের ছেলে।
পিবিআই সূত্রে জানা গেছে, গত ২৫ জুলাই রাত ৯টায় পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও সিলেট-১ আসনের সাংসদ ড. এ কে আব্দুল মোমেনকে ফোন করে চট্টগ্রাম-১৬ আসনের সংসদ সদস্য মোস্তাফিজুর রহমানের পরিচয় দিয়ে কথা বলে প্রতারক তৈয়ব। ফোনে সে জানায়, তার এক আত্মীয় সিলেটে হাসপাতালে ভর্তি, জরুরি ভিত্তিতে তার টাকা প্রয়োজন। এজন্য আবু তৈয়ব নামের একজনের কাছে টাকা পাঠাতে মোমেনকে অনুরোধ করে ফোনের ওপাশে থাকা প্রতারক ব্যক্তি। খবর শুনে সরল বিশ^াসে সাহায্যের জন্য আগ্রহ প্রকাশ করেন মন্ত্রী। ঐ সময় পররাষ্ট্রমন্ত্রী প্রতারক তৈয়বকে সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি বদর উদ্দিন আহমদ কামরানের সাথে যোগাযোগ করতে বলেন। মন্ত্রী এ ব্যাপারে সাবেক সিটি মেয়র কামরানকে ফোন করে জানিয়ে রাখেন। পরে আবু তৈয়ব বদর উদ্দিন আহমদ কামরানের কাছে ফোন করে বিকাশে টাকা পাঠাতে বলে। তাৎক্ষণিকভাবে কামরানসহ চার আওয়ামী লীগ নেতার কাছ থেকে সংগ্রহ করা মোট ৫৩ হাজার টাকা পাঠানো হয় বিকাশে।
এর পরে চট্টগ্রামের ‘সংসদ সদস্যের’ আত্মীয়কে দেখতে হাসপাতালে যান কামরানসহ কয়েকজন। কিন্তু হাসপাতালে এরকম কোন রোগী কিংবা আবু তৈয়বকে পাননি তারা। এমনকি যে নম্বর থেকে কল করা হয়েছিল, সেটিতে কল দিয়েও বন্ধ পান। পরে তারা পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সাথে যোগাযোগ করলে তিনিও জানান, তাকে চট্টগ্রামের ওই সংসদ সদস্য ফোন করেননি, বিষয়টি প্রতারকচক্রের কাজ। এ ঘটনায় ওসমানী হাসপাতালের নার্সেস অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক ইসরাইল আলী সাদেক কোতোয়ালী থানায় মামলা করেন গত ১ আগস্ট।
মামলার তদন্তভার পড়ে পিবিআই এর উপর। প্রযুক্তির সহায়তায় আবু তৈয়বের অবস্থান সনাক্ত করে গত শনিবার চট্টগ্রামের নিউমার্কেট এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। সিলেটে এনে তাকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। প্রতারণায় তার সহযোগী ছিলেন এহসানুল হক হাসান (২৬) নামের আরেকজন। বিকাশের নম্বরটি ছিল তার। তবে গেল আগস্টে তিনি মাদকের একটি মামলায় গ্রেফতার হয়ে কারাগারে আছেন।

শেয়ার করুন
শেষের পাতা এর আরো সংবাদ
  • টিলাগড়ে কলেজ ছাত্র দীপের খুনীরা ১৭ দিনেও গ্রেফতার হয়নি
  • ছবি
  •  বিটিআরসিকে ১০০০ কোটি টাকা দিল গ্রামীণফোন
  • রাগীব-রাবেয়া মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালের প্রাক্তন বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ডাঃ নাজিম উদ্দিন আহমেদের ইন্তেকালে শোক
  • আড়াই ঘন্টা পর ফিরিয়ে আনা হলো জকিগঞ্জের দুই জেলেকে
  • শমশেরনগর রেলওয়ে স্টেশনে উচ্ছেদ অভিযান-জরিমানা
  • পিআইসির বিরুদ্ধে জেলা প্রশাসকের কাছে অভিযোগ
  • দেশে খাদ্য চাহিদা পূরণে কৃষিভিত্তিক ব্যবসার দিকে এগিয়ে আসতে হবে .............. চেম্বার সভাপতি
  • কেন্দ্রঘোষিত কমিটি প্রত্যাখ্যান করে পাল্টা কমিটি ঘোষণা
  • তাহিরপুরে প্রতিপক্ষের হামলা ও হুমকির মুখে গ্রামছাড়া ৩০টি পরিবার
  • ইসহাক কাজল নাগরিক শোক সভা কাল
  • ছোট বিদ্যালয়ে বড় চর্চা
  • গ্রামের জনগণও এখন শহরের সুযোগ-সুবিধা পাবে
  • ‘আমরা এখন লন্ডন যাব কলম চালাতে’
  • প্রধান অতিথি কমরেড মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম
  • ওসমানী বিমানবন্দরে কর্মচারীর হামলায় কর্মচারী আহত
  • সিলেট বোর্ডে এসএসসি’র হিসাব বিজ্ঞানে অনুপস্থিত ২৬ পরীক্ষার্থী
  • বাসিয়া নদীকে আদি রূপে ফেরাতে হবে -----------------------সুলতানা কামাল
  • সুনামগঞ্জের প্রফেসর ডা. কবির চৌধুরী ‘স্বাধীনতা পুরস্কার’ এ মনোনীত
  • চেক ডিজঅনার মামলায় উচ্চ আদালতের যুগান্তকারী রায়
  • Developed by: Sparkle IT