শেষের পাতা ছাদ ধসে পড়ায় আতঙ্কিত গ্রাহক- কর্মকর্তারা

দোয়ারাবাজারে পরিত্যক্ত ভবনেই চলছে সোনালী ব্যাংকের কার্যক্রম

প্রকাশিত হয়েছে: ০৯-১০-২০১৯ ইং ০৩:০৫:২৬ | সংবাদটি ১২৪ বার পঠিত

দোয়ারাবাজার (সুনামগঞ্জ) থেকে নিজস্ব সংবাদদাতা॥ সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজার সোনালী ব্যাংক ভবনটি পরিত্যক্ত ঘোষণা করা হয়েছিল দীর্ঘ দুই যুগ আগে। এর পরেও ওই ভবনটিতে কার্যক্রম অব্যাহত রাখায় ২০১৬ সালের ২৯ মে ভবনের ছাদ ধসে আহত হয়েছিলেন কর্মকর্তা-কর্মচারীসহ অন্তত ১০জন। কিন্তু ওই দুর্ঘটনার পরও ভবনটি স্থানান্তর করতে কোনো উদ্যোগ না নেওয়ায় ঝুঁকিপূর্ণ ওই ভবনটিতেই ব্যাংকের কার্যক্রম পরিচালিত হচ্ছে। বাধ্য হয়ে ব্যাংকে আসা গ্রাহক ও কর্মকর্তা-কর্মচারীরা সারাক্ষণ আতঙ্কে থাকেন ছাদ ভেঙ্গে পড়ার ভয়ে। এরই ধারাবাহিকতায় গত রোববার সকালে উপজেলা সদরের মধ্যবাজারে অবস্থিত ওই ব্যাংকের দু‘তলা ভবনের ছাদ ধসে পড়ার আতংক ছড়িয়ে পড়লে ব্যাংকের লেনদেন কিছুক্ষণ বন্ধ রাখা হয়। এ সময় উপস্থিত গ্রাহক ছাদিকুর রহমান, সামসুল হক, নাজমা বেগম, মোস্তফা কামাল, রুহুল আমিন, আব্দুল্লাহ, আরিফুন নেছাসহ অনেকেই জানান, ছাদের কিছু অংশ হঠাৎ ধসে পড়ায় আমরা নিরাপত্তাহীনতায় ভূগছি। যে কোনো সময় পুরো ছাদ ধসে পড়ে হতাহতের ঘটনা ঘটতে পারে।
সোনালী ব্যাংক, দোয়ারাবাজার শাখার ফিল্ড সুপারভাইজার বুলবুল আহমেদ জানান, আমি দীর্ঘদিন যাবত এখানে কর্মরত আছি। মেয়াদ উত্তীর্ণ ভবনে ঝুঁকির মুখেই কাজ করছি, যে কোনো সময় ভবনটি ধসে পড়ার সম্ভাবনা রয়েছে। ওই শাখার সহকারী ব্যবস্থাপক আহমদ আল-মাসুম জানান, প্রতিনিয়ত জরাজীর্ণ ওই ভবনটির ছাদ অল্প অল্প করে ধসে পড়ায় গ্রাহকদের পাশাপাশি আমরাও সারাক্ষণ আতঙ্কে থাকি। বিগত ১৯৯৫ সালে ওই ভবনটি পরিত্যক্ত ঘোষণা করা হলেও এ যাবত সরকার বা ব্যাংক কর্তৃপক্ষ বিষয়টি নিয়ে কোনো পদক্ষেপ নেয়নি। যে কোনো সময় ভবনটি ধসে পড়ার আশংকায় রয়েছি আমরা।
অপরদিকে, গ্রাহকসেবায় নিরাপদ লেনদেন নিশ্চিত করতে জরুরি ভিত্তিতে ভবনটি স্থানান্তর বা পুনরায় নির্মাণ করতে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ বরাবরে জোর দাবি জানিয়েছেন দোয়ারাবাজারবাসী।

শেয়ার করুন
শেষের পাতা এর আরো সংবাদ
  • শক্তিশালী ভূমিকম্পে কাঁপলো তুরস্কের পূর্বাঞ্চল, নিহত ২১
  • সিলেট বিভাগে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৪
  • আইএসও সনদ অর্জন ভারতীয় ভিসা কেন্দ্রের
  • ‘বাংলাদেশের অগ্রযাত্রা কেউ থামাতে পারবে না’
  • সঠিক সময়ে বাঁধের কাজ শেষ করতে হবে
  • দোয়ারাবাজারে ২০ টাকার জন্য প্রাণ গেলো বৃদ্ধের
  • একুশে পদকপ্রাপ্ত ডা. অরূপ রতন চৌধুরীর সম্বর্ধনা আজ
  • সমাজকে অবহেলিত রেখে সুন্দরভাবে জীবনযাপন করা যায় না
  • ডাঃ আব্দুস শহীদ খানের ইন্তেকাল
  • ১২ দেশে করোনাভাইরাস, মৃত ৪১, আক্রান্ত ছাড়িয়েছে ১৩০০
  • এতিম শিশুদের সাহায্যার্থে লিডিং ইউনিভার্সিটির সোস্যাল সার্ভিসেস ক্লাবের চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা সম্পন্ন
  • ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে সাহিত্য ও সংস্কৃতি চর্চায় এগিয়ে আসতে হবে -------------এম কাজী এমদাদুল ইসলাম
  • দেশের উন্নয়নে মাদরাসা শিক্ষার অবদান অতুলনীয় ---মোকাব্বির খান এমপি
  • ওসমানীনগরে সিএনজি চোর চক্রের ৫ সদস্য গ্রেফতার
  • শিশুরা গণতান্ত্রিক মূল্যবোধের প্রতি শ্রদ্ধাশীল হতে পারছে
  • দলিত ও চা শ্রমিকদের জীবনমান উন্নয়নে সরকার কাজ করছে ---------বদর উদ্দিন আহমদ কামরান
  • ইট ভাটার অস্তিত্ব রক্ষায় ভাটা মালিকদের ঐক্যের প্রয়োজন ---মিজানুর রহমান বাবুল
  • জাফলংয়ে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান, মালামাল ধ্বংস
  • জার্মানিতে বন্দুকধারীর হামলা, নিহত ৬
  • লিডিং ইউনিভার্সিটির বার্ষিক বনভোজন
  • Developed by: Sparkle IT