সম্পাদকীয় যে আত্মাকে বিকশিত করতে পেরেছে সে-ই ভাগ্যবান এবং যে ব্যক্তি আত্মাকে কলুষিত করেছে সে-ই অপদস্থ। -আল হাদিস

গৃহকর্মী নির্যাতন

প্রকাশিত হয়েছে: ১১-১০-২০১৯ ইং ০০:৪৬:১০ | সংবাদটি ৯২ বার পঠিত

শিশু গৃহকর্মী নির্যাতনের ঘটনা ঘটেছে সম্প্রতি সিলেট নগরীতে। চুরির অপবাদে ১৩ বছরের এই শিশুকে গৃহকর্তা বেধড়ক পেটায়। শুধু তাই নয় তার এই অপকর্মে যুক্ত হয়েছে পুলিশ। শুধু তাই নয়, তাদের যৌথ নির্যাতনের শিকার হয়েছে ওই গৃহকর্মীর ভাই ও বোন-জামাইও। গৃহকর্মীর মা-কেও পিটিয়েছে এই পুলিশ কর্মকর্তা। কারণ তিনি মেয়েকে নির্যাতনের প্রতিবাদ করেছিলেন। নগরীর সুবিদবাজারে এক হোমিও ডাক্তার দম্পতির বাসায় ঘটে এই ঘটনা। অভিযোগে জানা যায়, প্রথম দফায় বাসায় এবং পরে থানায় নিয়ে দ্বিতীয় দফায় তাদের ওপর অমানবিক নির্যাতন করা হয়। ঘটনার প্রেক্ষিতে নির্যাতনকারী পুলিশের এসআইকে ক্লোজড করে পুলিশ লাইনে পাঠানো হয়েছে।
গৃহকর্মী নির্যাতনের ঘটনা এটি প্রথম নয়। প্রায় সময়ই এমন অমানবিক নির্যাতনের ঘটনা ঘটে থাকে। নির্যাতনে গৃহকর্মীর করুণ মৃত্যুর ঘটনাও ঘটছে। বিশেষ করে মেয়ে শিশুর ওপর নির্যাতনের ঘটনা ঘটছে বেশি। প্রথমত রয়েছে মানসিক নির্যাতন। অবস্থাসম্পন্ন তথাকথিত অভিজাত ঘরেও গৃহকর্মী বা কাজের মেয়েকে নানা অপবাদ-গঞ্জনার শিকার হতে হচ্ছে। তাছাড়া রয়েছে যৌন নির্যাতন। পরিবারের পুরুষ সদস্যদের দ্বারা নির্যাতিত হচ্ছে অসংখ্য শিশু-তরুণী গৃহকর্মী। নির্যাতিত হতে হচ্ছে গৃহকর্তার স্ত্রী বা মেয়ে বা অন্য কোন নারীর হাতেও। মূলত ছোটখাটো কোন ভুলভ্রান্তিকে কেন্দ্র করেই এইসব নির্যাতনের ঘটনা ঘটে থাকে। স্মরণ করা যেতে পারে ইতোপূর্বে সরকার গৃহকর্মী নির্যাতন বন্ধে প্রণয়ন করেছে গৃহকর্মী সুরক্ষা নীতিমালা-এর আওতায় গৃহকর্মী শ্রম হিসেবে স্বীকৃতি লাভ করেছে। আর এতে বলা হয়েছে, ১৪ বছরের কম বয়সী কাউকে গৃহকর্মী হিসেবে নিয়োগ দেয়া যাবে না। অথচ অবলীলায় শিশুদের গৃহকর্মী হিসেবে নিয়োগ দেয়া হচ্ছে।
গৃহকর্মী নির্যাতন বন্ধে দরকার কঠোর পদক্ষেপ। বিশেষ করে শিশুদের গৃহকর্মী হিসেবে নিয়োগ দেয়ার ব্যাপারে কড়াকড়ি আরোপ করতে হবে। পাশাপাশি শুধু গৃহকর্মী নয়, সব ধরনের শিশু শ্রমই বন্ধ করা জরুরি। কোমলমতি শিশুদের হাতে থাকবে বই-খাতা; নিদেনপক্ষে প্রাথমিক শিক্ষা নিশ্চিত করতে হবে। অবশ্য এ ব্যাপারে রয়েছে সরকারের ব্যাপক পরিকল্পনা। সবার জন্য বাধ্যতামূলকভাবে প্রাথমিক শিক্ষা নিশ্চিত হলে শিশুশ্রম, শিশু নির্যাতন বন্ধ হবে। শিশু নির্যাতনের সব ঘটনারই সুষ্ঠু বিচার হোক, দৃষ্টান্তমূলক সাজা হোক; দোষীর; যাতে আগামীতে এ ধরনের ঘটনা ঘটাতে কেউ সাহস না পায়।

শেয়ার করুন

Developed by: Sparkle IT