প্রথম পাতা

সড়ক আইনের প্রতিবাদে ১০ জেলায় বাস বন্ধ

ডাক ডেস্ক প্রকাশিত হয়েছে: ১৯-১১-২০১৯ ইং ০৩:০৭:২০ | সংবাদটি ১১৪ বার পঠিত

 বিভিন্ন অপরাধে শাস্তির মাত্রা বাড়িয়ে নতুন সড়ক পরিবহন আইন কার্যকর করার বিরোধিতায় দেশের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের ১০ জেলায় বাস চলাচল বন্ধ রেখেছে পরিবহন শ্রমিকরা। গতকাল সোমবার সকাল থেকে তাদের আকস্মিক এই কর্মসূচির কারণে ভোগান্তিতে পড়েছেন দূরপাল্লার যাত্রীরা। অনেকেই বাস স্ট্যান্ডে এসে দীর্ঘ সময় অপেক্ষা করে ফিরে গেছেন বাস না পেয়ে।
খুলনা বিভাগীয় শ্রমিক ফেডারশনের যুগ্ম সম্পাদক মোর্তজা হোসেন বলেন, যশোর, খুলনা, বাগেরহাট, সাতক্ষীরা, মাগুরা, নড়াইল, ঝিনাইদহ, মেহেরপুর, কুষ্টিয়া ও চুয়াডাঙ্গার পরিবহন শ্রমিকরা সকাল থেকে ‘স্বেচ্ছায়’ এই কর্মবিরতি পালন করছেন।
“শ্রমিকরা কাউকে ইচ্ছা করে হত্যা করে না। অনিচ্ছাকৃত দুর্ঘটনার জন্য নতুন সড়ক আইনে তাদেরকে ঘাতক বলা হচ্ছে। তাদের জন্য এমন আইন করা হয়েছে যা সন্ত্রাসীদের ক্ষেত্রে প্রযোজ্য। “নতুন আইনের অনেক ধারার ব্যাপারে শ্রমিকদের আপত্তি রয়েছে। সরকার সমাধানের কোনো উদ্যোগ না নেওয়ায় শ্রমিকরা বাস চলাচল বন্ধ করে দিয়েছেন।”
গত বছর ঢাকায় বাসচাপায় দুই ছাত্রছাত্রীর মৃত্যুর পর নিরাপদ সড়কের দাবিতে শিক্ষার্থীদের নজিরবিহীন আন্দোলনের মুখে নতুন সড়ক পরিবহন আইন সংসদে পাস হয়। তবে তা এ বছর ১ নভেম্বর থেকে কার্যকর করার কথা বলা হয়। বেপরোয়া মোটরযানের কবলে পড়ে দুর্ঘটনার ক্ষেত্রে সর্বোচ্চ পাঁচ বছরের কারাদ-, সর্বোচ্চ পাঁচ লাখ টাকা জরিমানা অথবা উভয় দ-ের বিধান রাখা হয়েছে এ আইনে, যা আগের তুলনায় বেশি। এ কারণে আইনটি প্রণয়নের পর থেকেই এর বিরোধিতা করে আসছে পরিবহন মালিক-শ্রমিক সংগঠনগুলো।
যশোর জেলা পরিবহন সংস্থা শ্রমিক ইউনিয়নের সাংগঠনিক সম্পাদক হারুন অর রশিদ বলেন, ১৪ নভেম্বর যশোরে এক সমাবেশ থেকে ২০১৮ সালের সড়ক আইন সংশোধনের দাবি জানিয়েছিলেন তারা। এরপর রোববার থেকে যশোরের ১৮ রুটের শ্রমিকরা কর্মবিরতি শুরু করেন। পরে সোমবার সকালে অন্যান্য জেলাতেও কর্মবিরতি শুরু হয়।
ঝিনাইদহ বাস, মিনিবাস ও মাইক্রো শ্রমিক ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক আশরাফুজ্জামান খোকন বলেন, যান চলাচল ঠেকাতে সড়কে কোনো ব্যারিকেড দেননি তারা। শ্রমিকরা স্বেচ্ছায় কাজ বন্ধ রেখেছে।
ঝিনাইদহের পুলিশ সুপার মো. হামানুজ্জামান বলেন, “শ্রমিকদের অঘোষিত কর্ম বিরতিতে লোকাল রুটগুলোতে বাস, মিনিবাস চলছে না। তবে দূরপাল্লার রুটে যানবাহন চলাচল করছে।” খুলনা বিভাগীয় শ্রমিক ফেডারশনের যুগ্ম সম্পাদক মোর্তজা হোসেন বলেন, আইন সংশোধনের দাবি পূরণ না হওয়া পর্যন্ত তাদের কর্মবিরতি চলবে।

 

শেয়ার করুন
প্রথম পাতা এর আরো সংবাদ
  • কয়েক বছরের মধ্যেই নগরীর বস্তিসমূহের আধুনিকায়ন হবে
  • নারী নির্যাতন প্রতিরোধ পক্ষ ও বেগম রোকেয়া দিবস আজ
  • সিলেটের নারীদের এমনভাবে এগিয়ে যেতে হবে যাতে অন্য বিভাগের জন্য অকুরণীয় হয় ....... এম. কাজী এমদাদুল ইসলাম
  • গোয়াইনঘাটে স্ত্রী হত্যায় স্বামী জেলে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে পিতার মৃত্যু
  • দিল্লিতে কারখানায় অগ্নিকান্ডে ৪৩ জনের মৃত্যু
  • আসক্তি কাটছে গৃহিণীদের পেঁয়াজ চড়া দামে স্থিতি ছাদেক আহমদ আজাদ
  • গণহত্যার শুনানিতে অংশ নিতে দেশ ছাড়লেন সু চি
  • সচিবালয়ের চারপাশ হর্ন বিহীন এলাকা ঘোষণা
  • ফেসবুক থেকে মিথিলা-ফাহমির ছবি সরাতে হাইকোর্টের নির্দেশ
  • মৌলভীবাজারে হানাদার মুক্ত দিবস পালিত
  • আদালতের নির্দেশে কমলগঞ্জে ৫ মাস পর কবর থেকে তরুণীর লাশ উত্তোলন
  • বিডিনিউজ প্রধান সম্পাদকের ব্যাংক হিসাব জব্দ
  • খালেদা জিয়ার মুক্তি নিয়ে কোনো টালাবাহানা মেনে নেয়া হবে না
  • জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার বিতরণ সমাজ বিনির্মাণে চলচ্চিত্রের গুরুত্ব রয়েছে : প্রধানমন্ত্রী
  • বড় বড় রুই-কাতলাও এখন দুদকের জালে : চেয়ারম্যান
  • সাংবাদিকদের সিলেট মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি প্রফেসর মোর্শেদ চৌধুরী
  • অসাম্প্রদায়িক দক্ষিণ এশিয়া গঠনে নারীর ভূমিকা অপরিহার্য : পরিকল্পনামন্ত্রী
  • চার কোটি টাকা আত্মসাতের ঘটনায় সিলেট পরিবার পরিকল্পনা বিভাগে তোলপাড়
  • মৌলভীবাজার মুক্ত দিবস আজ
  • সৌদিতে নির্যাতিতা জগন্নাথপুরের কিশোরীর আকুতি দেশে ফেরার
  • Developed by: Sparkle IT