প্রথম পাতা করোনাভাইরাস

দেশেই তৈরী হচ্ছে পরীক্ষামূলক ঔষধ

ডাক ডেস্ক প্রকাশিত হয়েছে: ০৬-০৪-২০২০ ইং ২১:৪০:৩০ | সংবাদটি ১৫৪ বার পঠিত
Image

এখন পর্যন্ত নিশ্চিত কোন ঔষধ আবিস্কৃত হয়নি করোনাভাইরাসজনিত রোগের। তবে থেমে নেই বিশ্বের চিকিৎসক ও গবেষকেরা। ধনী-গরিব সব দেশ হন্যে হয়ে করোনার ঔষধ খুঁজছে। নিরন্তর গবেষণা হচ্ছে কার্যকর ঔষধ তৈরির জন্য। পরীক্ষামূলক ঔষধ তৈরিও হচ্ছে। এ থেকে পিছিয়ে নেই বাংলাদেশের ঔষধ কোম্পানিগুলোও। এদের মধ্যে আছে এসকেএফ ফার্মাসিউটিক্যালস, বিকন ফার্মাসিউটিক্যালস, বেক্সিমকো ফার্মাসিউটিক্যালস, জিসকা ফার্মাসিউটিক্যালস, ইনসেপ্টা ফার্মাসিউটিক্যালস প্রভৃতি। ঔষধ প্রশাসন সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। বিভিন্ন দেশে করোনাভাইরাসের চিকিৎসায় যেসব ঔষধ পরীক্ষামূলকভাবে প্রয়োগ করা হচ্ছে, সেসব ঔষধই তৈরি করছে দেশীয় ঔষধ কোম্পানিগুলো।

জানা গেছে, ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তর দেশীয় কোম্পানিগুলোকে বেশ কয়েকটি ঔষধ তৈরির অনুমোদন দিয়েছে। এ ছাড়া বাংলাদেশ ন্যাশনাল গাইডলাইন ফর কোভিড-১৯ বেশ কিছু ঔষধ তাদের নীতিমালায় অন্তর্ভুক্ত করেছে। করোনাভাইরাসজনিত রোগের চিকিৎসা ও ব্যবস্থাপনায় একাধিক ঔষধ নিয়ে কাজ করছে দেশের প্রতিষ্ঠিত ঔষধ প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান এসকেএফ ফার্মাসিউটিক্যালস। এ ব্যাপারে এসকেএফ-এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা সিমিন হোসেন বলেন, দেশের এই সংকটময় মুহূর্তে আমাদের জনগণের জন্য কার্যকরী ঔষধ সরবরাহ রাখতে আমরা স্বতঃস্ফূর্তভাবে বাংলাদেশ সোসাইটি অব মেডিসিন এবং বাংলাদেশ ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তরের সঙ্গে কাজ করে আসছি।

ইতিমধ্যে আমরা হাইড্রোক্সিক্লোরোকুইন প্রস্তুত করেছি। অতিসত্বর আমরা ফ্যাভিপিরাভির, ওসেল্টামিভির ও ইভারমেকটিন প্রস্তুত করতে যাচ্ছি। আমরা চাই, উন্নত বিশ্বে যেসব ঔষধ কোভিড-১৯-এর চিকিৎসায় কার্যকরভাবে ব্যবহৃত হবে, তার সব কটি এ দেশের মানুষের জন্য এসকেএফ প্রস্তুত করবে। জানা গেছে, ফ্যাভিপিরাভির ঔষধটি জাপানি কোম্পানি ফুজির অঙ্গপ্রতিষ্ঠান তোয়ামা কেমিক্যাল তৈরি করেছিল ইনফ্লুয়েঞ্জার চিকিৎসার জন্য।

গত শনিবার সাউথ চায়না মর্নিং পোস্ট-এর এক প্রতিবেদনে বলা হয়, চীনের ন্যাশনাল সেন্টার ফল বায়োটেকনোলজি ডেভেলপমেন্টের পরিচালক ঝ্যাং জিনমিন বলেছেন, দেশটির দুটি মেডিকেল ইনস্টিটিউশন ফ্যাভিপিরাভির প্রয়োগ করে দেখেছে, এটি করোনাভাইরাসজনিত কিছু লক্ষণ কমাতে কার্যকর। এর মধ্যে রয়েছে নিউমোনিয়া। সাউথ চায়না মর্নিং পোস্ট লিখেছে, দক্ষিণ কোরিয়ার খাদ্য ও নিরাপদ ঔষধবিষয়ক মন্ত্রণালয় ফ্যাভিপিরাভিরের বদলে যুক্তরাষ্ট্রের একটি কোম্পানির তৈরি রেমডেসিভির নামের একটি ঔষধ করোনা চিকিৎসায় পরীক্ষামূলক ব্যবহারের অনুমোদন দিয়েছে। এটি ইবোলা ভাইরাস চিকিৎসার জন্য তৈরি করা হয়েছিল। তৈরি করেছিল যুক্তরাষ্ট্রের শীর্ষস্থানীয় ঔষধ কোম্পানি জাইলিড সায়েন্স। জাপানে ফুজির তৈরি ফ্যাভিপিরাভির ঔষধটির ব্র্যান্ড নাম অ্যাভিগান। এটি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগীদের সুস্থ করতে পারে কি না, তা পরীক্ষা-নিরীক্ষা করছে জাপান। ফ্যাভিপিরাভির তৈরি করেছে বিকন ফার্মা।

ক্যানসারের ঔষধ তৈরির জন্য সুপরিচিত বিকন ফার্মার ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ এবাদুল করিম বলেন, কার্যকারিতা পাওয়া গেলে ঔষধটির বাণিজ্যিক উৎপাদন করা যাবে। ঔষধটি মূলত ইবোলা ভাইরাসের চিকিৎসার জন্য জাপানের ফুজি তৈরি করেছিল। পরে চীন করোনা ঠেকাতে এটি প্রয়োগ করে সুফল পায়। তাই আমরা চীন থেকে অ্যাকটিভ ফার্মাসিউটিক্যালস ইনগ্রেডিয়েন্ট (এপিআই) এনেছি।বেক্সিমকো ফার্মাও বলছে, তারাও ঔষধ তৈরি করে মজুত রাখছে, যাতে সরকার চাইলে সরবরাহ করতে পারে। প্রতিষ্ঠানের প্রধান পরিচালন কর্মকর্তা রাব্বুর রেজা বলেন, বিভিন্ন দেশ বিভিন্ন ঔষধ পরীক্ষা করছে। আমরা রেমডেসিভির বাদে সবগুলোই তৈরি করে মজুত করছি যাতে যেকোনো একটি কার্যকর প্রমাণিত হলে এবং অনুমোদন দেওয়া হলে আমরা সরকারকে সরবরাহ করতে পারি।করোনাভাইরাসের চিকিৎসা নিয়ে বড় দেশগুলোর পাশাপাশি ছোট ছোট দেশও কাজ করছে। অস্ট্রেলিয়ার এবিসি নিউজ গত শনিবার তাদের এক প্রতিবেদনে বলেছে, মোনাশ বায়োমেডিসিন ডিসকভারি ইনস্টিটিউট ও ডোহার্টি ইনস্টিটিউটের এক গবেষণায় জানানো হয়েছে, আইভারমেকটিন শরীরে করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে পারে। যদিও বিষয়টি একেবারেই পরীক্ষার পর্যায়ে রয়েছে। করোনার সম্ভাব্য ঔষধ তৈরির বিষয়ে ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তরের আনুষ্ঠানিক কোনো বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

তবে সংস্থাটির সাবেক পরিচালক গোলাম কিবরিয়া বলেন, দেশের ঔষধ নিয়ন্ত্রণ কমিটি নানা পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর নতুন কোনো ঔষধের অনুমোদন দেয়। দেশে কোনো ঔষধ বাণিজ্যিকভাবে বাজারজাত করতে হলে এ প্রক্রিয়া অনুসরণ করতে হয়। তবে সুবিধার দিক হচ্ছে, এলডিসি হিসেবে বাংলাদেশ ঔষধের মেধাস্বত্ব কেনা ছাড়াই ঔষধ তৈরি করতে পারে।

শেয়ার করুন

ফেসবুকে সিলেটের ডাক

প্রথম পাতা এর আরো সংবাদ
  • করোনার কাছে হার মানলেন শামসুদ্দিনের নার্সিং কর্মকর্তা রুহুল আমিন
  • শান্তিরক্ষী দিবসে শেখ হাসিনাকে আন্তোনিও গুতেরেসের শুভেচ্ছা
  • যে ১২ শর্তে রোববার থেকে চলবে বাস
  • সিলেট নতুন ৩১ জনের করোনা শনাক্ত
  • ছাতকের দু’পক্ষের সংঘর্ষে শিশুসহ আহত ২৫
  • চুনারুঘাটে ২৫ কেজি গাঁজা উদ্ধার
  • কমলগঞ্জে ত্রাণের দাবিতে পরিবহন শ্রমিকদের মানববন্ধন
  • ভারতীয় নাগরিকদের হাতে মাধবপুরের যুবক খুন : ৬ দিন পর লাশ হস্তান্তর
  • মাধবপুরে শুক্কুর আলী নিহতের ঘটনায় মামলা : গ্রেফতার ২
  • সুনামগঞ্জে নতুন করে হোম কোয়ারেন্টাইনে ৩৬ জন
  • করোনাকালে গণপরিবহনের ভাড়া নির্ধারণ কাল
  • লিবিয়ায় মৃত বাংলাদেশিদের পরিচয় মিলেছে
  • ট্রলি চাপায় দিরাইয়ে শিশুর মৃত্যু
  • ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরীর এবারের উদ্যোগ ‘প্লাজমা ব্যাংক’
  • ছাতকে ডাক্তারসহ আরো ৬ জন করোনা আক্রান্ত
  • লিবিয়ায় ২৬ নাগরিককে হত্যার বিচার চেয়েছে বাংলাদেশ
  • একদিনে সর্বোচ্চ আক্রান্ত ২৫২৩, মৃত্যু ২৩
  • গোয়াইনঘাটে পাহাড়ি ঢলে নিখোঁজ যুবকের লাশ উদ্ধার
  • বেঁচে ফেরা এক বাংলাদেশির মুখে ভয়াবহ ঘটনার বর্ণনা
  • শান্তিরক্ষীদের বহন করল বাংলাদেশ বিমান
  • Image

    Developed by:Sparkle IT